প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সৌদি ক্রাউন প্রিন্সের নির্দেশেই খাসোগির বিরুদ্ধে অভিযান: ওয়াশিংটন পোস্ট

সান্দ্রা নন্দিনী: যুক্তরাষ্ট্রের গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে মার্কিন সংবাদমাধ্যম ওয়াশিংটন পোস্ট তাদের বুধবারের এক প্রতিবেদনে জানায়, সৌদি ক্রাউন প্রিন্স মোহাম্মদ বিন সালমানের সরাসরি নির্দেশেই খাসোগির বিরুদ্ধে অভিযান চালানো হয়েছে।

প্রতিবেদনে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন মার্কিন কর্মকর্তার বরাতে বলা হয়, সৌদি কর্মকর্তারা খাসোগিকে তার আবাসস্থান যুক্তরাষ্ট্রের ভার্জিনিয়া থেকে ফাঁদ পেতে আটকের পরিকল্পনা নিয়ে আলোচনা করছিলেন।

এছাড়া, খাসোগির কয়েকজন বন্ধুর সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, সৌদি কর্তৃপক্ষ তাকে ফিরে যাওয়ার শর্তে, নিরাপত্তা এবং সৌদি আরবে উচ্চপর্যায়ের সরকারি চাকরির প্রস্তাব দিলেও খাসোগি সে সবই প্রত্যাখ্যান করেন।

এদিকে, মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেছেন, নিখোঁজ সাংবাদিক জামাল খাসোগির বিষয়ে যাবতীয় তথ্য সৌদি আরবকেই প্রকাশ করতে হবে। ট্রাম্প বুধবার সাংবাদিকদের জানান, সৌদি আরবের সর্বোচ্চ কর্তৃপক্ষের সাথে খাসোগির বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করেছেন তিনি।

ট্রাম্প বলেন, ‘সৌদি সাংবাদিকের সঙ্গে যা কিছু হয়েছে, সেটা কোনভাবেই হতে দেয়া যায় না। শুধু সাংবাদিক নয়, এমনটা কোনও মানুষের সঙ্গেই হওয়া উচিৎ না।’ তিনি বলেন, ‘আমরা খাসোগির বিষয়ে আদ্যোপান্ত সবই জানতে চাই। আমরা এটি শেষপর্যন্ত পর্যবেক্ষণ করে যেতে চাই।’

হোয়াইট হাউজ জানায়, মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও সৌদি ক্রাউন প্রিন্স মোহাম্মদ বিন সালমানের সঙ্গে মঙ্গলবার কথা বলেছেন। তিনি ক্রাউন প্রিন্সের কাছে খাসোগির বিষয়ে বিস্তারিত জানতে চেয়েছেন।

এদিকে, বুধবার তুর্কি গণমাধ্যম সিসিটিভি ফুটেজ প্রকাশ করেছে। সেখানে ২ অক্টোবর সৌদি গোয়েন্দা কর্মকর্তাদের ইস্তাম্বুল বিমানবন্দরে প্রবেশ এবং পরবর্তীতে সেখান থেকে প্রস্থান করতে দেখা গেছে।
উল্লেখ্য, যুক্তরাষ্ট্রের নাগরিকত্বপ্রাপ্ত সৌদি সাংবাদিক খাসোগি, গত ২ অক্টোবর তুরস্কের ইস্তাম্বুলের সৌদি কনস্যুলেটে প্রবেশের পর নিখোঁজ হন। তুর্কি কর্তৃপক্ষ বলেছে, তারা প্রায় নিশ্চিত; সৌদি আরবই পরিকল্পিতভাবে তাকে হত্যা করেছে। তবে সৌদি আরব বরাবরই এ অভিযোগ অস্বীকার করে আসছে। বিবিসি। সম্পাদনা : সালেহ্ বিপ্লব

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত