প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

‘জঙ্গি তৎপরতা বাড়ার শঙ্কা থাকলেও উদ্বিগ্ন হওয়ার কিছু নেই’

আশিক রহমান : দেশে জঙ্গি তৎপরতা বাড়ার আশঙ্কা থাকলেও উদ্বিগ্ন হওয়ার কিছু নেই বলে মনে করেন নিরাপত্তা বিশ্লেষক মেজর জেনারেল (অব.) এ কে মোহাম্মদ আলী শিকদার। এ প্রতিবেদকের সঙ্গে আলাপকালে তিনি বলেন, জাতীয় নির্বাচন আসন্ন। নির্বাচনকে কেন্দ্র করে জঙ্গিরা আবারও সংঘবদ্ধ হচ্ছে। এমন আশঙ্কা আমরা অনেক আগে থেকেই করে আসছি। তারা আরও সংঘটিত হওয়ার চেষ্টা করবে, বড় ধরনের নাশকতা বা টার্গেট কিলিংয়েরও তৎপরতা চালাতে পারে। নির্বাচন কেন্দ্র করে যেহেতু পুলিশ ব্যস্ত থাকবে, সেই সুযোগটি নিতে চাইবে অপগোষ্ঠী।

তিনি আরও বলেন, নির্বাচন বানচালের চেষ্টাও হতে পারে। বড় ধরনের দুর্ঘটনা ঘটিয়ে, অস্থিতিশীল পরিস্থিতি সৃষ্টি করে অন্য কোনো পন্থায় সরকার উৎখাতের চেষ্টাও তাদের থাকবে। কেননা জঙ্গিরা জানে, তাদের যে রাজনৈতিক শক্তি, যে রাজনীতি থেকে তাদের উৎপত্তি, যে রাজনীতি বাংলাদেশে এখনো বহাল সেই রাজনীতি এখন পর্যদুস্ত ও বিপর্যস্ত। এক প্রশ্নের জবাবে মে. জে. (অব.) মোহাম্মদ আলী শিকদার বলেন, জঙ্গিরা এখন কোনঠাসা। কিন্তু আমাদের আত্মতুষ্টির জায়গা নেই। পূর্বের ধারাবাহিকতায় পুলিশ হয়তো চট্টগ্রামের মিরের সরাইয়ের জঙ্গি আস্তানার খবর পেয়েছে। বরাবরের মতো একটা সাকসেসফুল অপারেশন পরিচালনা করেছে তারা। পুলিশ যদি এই ধারা অব্যাহত রাখতে পারে তাহলে জঙ্গিরা বড় ধরনের কোনো দুর্ঘটনা ঘটাতে পারবে না। তবে জঙ্গিরা চেষ্টা করবে সর্বশক্তি দিয়ে। পুলিশ-র‌্যাব তৎপর, জঙ্গিরা বড় ধরনের কোনো ঘটনা ঘটাতে পারবে না জঙ্গিগোষ্ঠী।

তিনি বলেন, জঙ্গি আস্তানা পাওয়ার অর্থ এ নয়, উদ্বিগ্ন হতে হবে। আমাদের উদ্বেগ থাকবে কেন? উদ্বিগ্ন তখন হতাম যদি পুলিশ জঙ্গি আস্তানা খোঁজে না পেত, গুঁড়িয়ে দিতে না পারতো। কিন্তু পুলিশ সফল। জঙ্গিদের তো ধরেছে। জঙ্গিরা বহু ধরনের অপতৎরতা চালাচ্ছে এ নিয়ে শঙ্কা আছে, তবে উদ্বেগ নেই। জঙ্গিরা যখনই সংঘবদ্ধ হওয়ার চেষ্টা করছে, তাদের রুখে দেওয়া হচ্ছে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত