প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

৭ দাবিতে ৩ অক্টোবর ৬৪ জেলায় সমাবেশ করবে বিএনপি

সাব্বির আহমেদ : জনসভা থেকে সাত দফা দিয়ে তা আদায়ের লক্ষ্যে আগামী ৩ অক্টোবর ৬৪ জেলায় সমাবেশ করার ঘোষণা দিয়েছে বিএনপি। ওইদিন জেলা প্রশাসকের নিকট স্মারকলিপি প্রদান করবে দলটি। ৪ অক্টোবর দেশের প্রতিটি বিভাগে সমাবেশ শেষে বিভাগীয় কমিশনারের নিকট স্মারকলিপি দেওয়া হবে।

রোববার রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের বিএনপি আয়োজিত সমাবেশ থেকে দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এসব কর্মসূচির কথা জানান।

আগামী জাতীয় নির্বাচনকে সামনে রেখে দলের পক্ষ থেকে মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সাত দফা দাবি ও বারো দফা লক্ষের কথা ঘোষণা করেন।

দাবিগুলোর হল, তফসিল ঘোষণার আগে খালেদা জিয়ার মুক্তি ও তারেক রহমানের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার,চলমান সংসদ বাতিল।সরকারের পতন, রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে আলোচনা সাপেক্ষে নিরপেক্ষ সরকার গঠন, নির্বাচনে সেনাবাহিনী মোতায়েন ও মেজেস্ট্রেসি ক্ষমতা প্রদান, ইভিএম বাতিল, ইসি পুনর্গঠন,দেশীয় ও আন্তজার্তিক পর্যবেক্ষকদের নির্বাচন দেখভালের স্বাধীনতা, তফসিল ঘোষণা থেকে নির্বাচনের চূড়ান্ত ফলাফল ঘোষণার আগ পর্যন্ত নতুন কোনো মামলা না দেয়া ও পুরনো মামলায় কাউকে গ্রেফতার না করা।হয়রানিমূলক মামলায় গ্রেফতার শিক্ষার্থী ও সাংবাদিকদের মুক্তি।

লক্ষ্য গুহলো-

দেশে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা, বিচার বিভাগ ও গণমাধ্যমের স্বাধীনতা নিশ্চিত করা, সেনাবাহিনীকে আরও যুগপোযোগী করা, জানমালের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা, কারো সঙ্গে বৈরিতা নয়, বন্ধুত্ব সৃষ্টি করা, প্রতিবেশী দেশের সঙ্গে সুসম্পর্ক রক্ষা করা, বেকার ভাতা প্রদান ইত্যাদি।

মির্জা ফখরুল বলেন, আজকের অনেক্কে গ্রেফতার করা হয়েছে, তাদের দ্রুত মুক্তি না দিলে এর চড়া মূল্য দিতে হবে। দেশজুড়ে গায়েবী মামলা দেয়া হচ্ছে। এসব বানোয়াট মামলার জন্য সরকারকে কাঠগড়ায় দাড়াতে হবে। সরকার রেহাই পাবে না। সরকার অস্থির হয়ে গেছে। ব্যবসায়ীর কাছ থেকে নেওয়া কর ও চাঁদা দিয়ে পদ্মাসেতু করছে। মেগা প্রজেক্ট বানাচ্ছে।

তিনি বলেন, জনগণ খালেদা জিয়াকে মুক্ত করে আনবেই। সরকার দু স্বপ্ন দেখে। বিএনপি, খালেদা জিয়া, তারেক রহমান বলে ঘুমে চিতকার করে ওঠে। বিএনপি ভীতি কাজ করে। সরকার সম্পূর্ণ মিথ্যা মামলায় তারেক রহমানকে সাজা দিতে চাচ্ছে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত