প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

আওয়ামী লীগের কারণে দেশ আজ সমৃদ্ধ: এমপি এনামুল হক

বাগমারা প্রতিনিধি : রাজশাহীর বাগমারা আসনের সংসদ সদস্য ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হক দলীয় নেতৃবৃন্দের উদ্দেশ্যে বলেছেন, ২০০৮ সালের পূর্বে বাগমারা ছিল রক্তাক্ত জনপদ, সন্ত্রাসের জনপদ। আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর থেকে বাগমারা শান্তির জনপদে পরিনত হয়েছে। বাগমারায় এখন আর কাউকে সর্বহারার লাল চিঠি পেতে হয় না।এখন আর কোন ব্যক্তিকে রাতে বাড়ি থেকে পালিয়ে থাকতে হয় না।বাগমারায় মহিলা আওয়ামী লীগ কতটা শক্তিশালী আজকের উপস্থিতিই তা প্রমাণ করে।আওয়ামী লীগ সরকার জনগণের সরকার। মহিলা আওয়ামী লীগের একটি প্রাণ। দেশের অর্ধেক জনগোষ্ঠী মহিলা। মহিলাদের ছাড়া কোন দেশেই সঠিক ভাবে উন্নয়ন সম্ভব না। মহিলারও উন্নয়নের অংশীদার।

রোববার  বেলা ১১ টায় ভবানীগঞ্জ নিউ মার্কেট মিলনায়তনে উপজেলা মহিলালীগ আয়োজিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন পরিচালনা কমিটির মহিলালীগ সদস্যদের সাথে মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি কথা বলেন।

ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হক বলেন, আওয়ামী লীগ সরকার নারী বান্ধব সরকার। আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর থেকে নারীদের জন্য চালু করেছেন মাতৃত্বকালীন ভাতা, বষস্কভাতা, বিধবাভাতাসহ বিভিন্ন প্রকার ভাতা।যা বিগত কোন সরকার এরকম ভাতা চালু করেনি। মহিলাদের কর্মসংস্থান সৃষ্টির লক্ষ্যে বিনামূল্যে বিভিন্ন প্রকার প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করেছেন।বর্তমান সরকার ক্ষমতায় থাকার কারণে দেশের লোকজন নিরাপদে রাস্তার চলা চল করতে পারছে।

ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হক  আরও বলেন, দেশের উত্তরাঞ্চলে মধ্যে শিক্ষার হার সবচেয়ে বেশি বাগমারায়। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশের দারিদ্র জনগোষ্ঠীর জন্য চালু করেছেন খাদ্য সহায়তা কর্মসূচী।এর মধ্যে রয়েছে ১০ টাকা কেজি চাল এবং বিনামূল্যে ভিজিডি, ভিজিএফ এর চাল বিতরণ করে চলেছেন। দেশের কোন মানুষ যেন না খেয়ে জীবন যাপন করতে না হয় এই উদ্দেশ্য নিয়ে খাদ্য কর্মসূচী চালু করেছেন। শেখ হাসিনা ক্ষমতায় আসার পর থেকে বছরের প্রথম তারিখে বিনামূল্যে পাঠ্যবই বিতরণ করা হচ্ছে।দেয়া হচ্ছে মায়েদের মোবাইল এ্যাকাউন্টে শিশুর শিক্ষা সহায়তা ভাতা। কোন শিশু যেন লেখাপড়া শথেকে ঝরে না পড়ে তার জন্য চালু করেছেন শিক্ষা উপবৃত্তি। আ’লীগের কারণে দেশ আজ সমৃদ্ধশালী। শেখ হাসিনা ক্ষমতায় আসার পর দেশে যে উন্নয়নের জোয়ার সৃষ্টি হয়েছে তা ধরে রাখতে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকায় ভোট দিয়ে নৌকার বিজয় নিশ্চিত করতে হবে।নৌকার বিজয়ে সবাইকে নৌকায় ভোট দেয়ার আহ্বান জানান তিনি।

উপজেলা মহিলা লীগের সভাপতি মরিয়ম বেগমের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক কহিনুর বেগমের পরিচালানয় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জেলা আ’লীগের সহ-সভাপতি অনিল কুমার সরকার, উপজেলা আ’লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ গোলাম সারওয়ার আবুল, উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে দায়িত্বপ্রাপ্ত মহিলা আ’লীগের নেতৃবৃন্দের মধ্যে জেলা পরিষদ সদস্য নারগিস বেগম, মমতাজ আক্তার বেবী, রোকেয়া বেগম, মাজেদা বেগম, সালেহা বেগম, অনিমা রানী প্রমুখ।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ভবানীগঞ্জ পৌরসভার মেয়র আব্দুল মালেক মন্ডল, উপজেলা আ’লীগের সহ-সভাপতি আহসান হাবিব, রিয়াজ উদ্দীন আহম্মেদ, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সিরাজ উদ্দীন সুরুজ, সহ-দপ্তর সম্পাদক নুরুল ইসলাম, সহ-প্রচার সম্পাদক ফরহাদ হোসেন মজনু, চেয়ারম্যান আসলাম আলী আসকান, আনোয়ার হোসেন, সাবেক চেয়ারম্যান লুৎফর রহমান, জেলা পরিষদ সদস্য মাহমুদুর রহমান রেজা, উপজেলা আ’লীগের সদস্য আব্দুল বারী, হাচেন আলী, ওমর আলী, লোকমান আলী, শ্রীপুর ইউনিয়ন আ,লীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রহমান, মাড়িয়া ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক সামসুল ইসলাম, শুভডাঙ্গা ইউনিয়ন আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক আজাহার আলী প্রমুখ। এসময় উপজেলার ১৬টি ইউনিয়ন এবং ২টি পৌরসভার একাদশ নির্বাচনে দায়িত্ব প্রাপ্ত ও মহিলা লীগের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত