প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

adv 468x65

প্রধানমন্ত্রীও হিজড়াদেরকে নিজের সন্তান হিসেবে বুকে টেনে নিয়েছেন: ডিআইজি হাবিব

রফিকুল ইসলাম, গাইবান্ধা: পিছিয়ে পড়া তৃতীয় লিঙ্গের (হিজড়া) জনগোষ্ঠীর জীবন মান উন্নয়নে গাইবান্ধা জেলা পুলিশ সুপার ইঞ্জিঃ আব্দুল মান্নান মিয়া’র সহযোগিতায় ঢাকাস্থ উত্তরণ ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে গাইবান্ধার হিজড়া উন্নয়ন সংস্থার সভাপতি মৌ আক্তারের হাতে বিনামূল্যে ৫টি গাভী ও ৩টি বাছুর প্রদান করা হয়।

২৮ সেপ্টেম্বর শুক্রবার সকাল ১১টায় মুষলধারে বৃষ্টিকে উপেক্ষা করে পুলিশ সদর দফতরের ডিআইজি ও উত্তরণ ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান বিপিএম (বার) পিপিএম এই গাভীগুলো হিজরাদের হাতে তুলে দিয়ে শহরের ডেভিড কোম্পানী পাড়ায় হিজড়াদের বাড়ি সংলগ্ন ‘উত্তরণ ডেইরী ফার্ম’ এর শুভ উদ্বোধন করেন ।

গাইবান্ধা জেলার কৌশলী পুলিশ সুপার ইঞ্জিঃ আবদুল মান্নান মিয়ার সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আলোচনায় অংশ নেন গাইবান্ধা জেলা প্রশাসক গৌতম চন্দ্র পাল, রংপুর রেঞ্জের এডিশনাল ডিআইজি আব্দুল মজিদ, পৌরসভার প্যানেল মেয়র জিএম চৌধুরী মিঠু, ঢাকা উত্তরণ ফাউন্ডেশনের সাধারণ সম্পাদক কামরুল হাসান শায়ক, হিজড়া উন্নয়ন সংস্থার সভাপতি মৌ আক্তার প্রমুখ।

 

উল্লেখ্য যে, ঢাকার এই উত্তরণ ফাউন্ডেশন নামে এই স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনটি বাংলাদেশের পিছিয়ে পড়া তৃতীয় লিঙ্গের মানুষ হিজড়া এবং বেদে সম্প্রদায়ের জীবন মান উন্নয়নের লক্ষে ২০১১ সাল থেকে নানা জনকল্যাণমূলক কার্যক্রম বাস্তবায়ন করে আসছে।

এছাড়াও উক্ত সংগঠনটি পথশিশুদের উন্নয়নেও কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছে । উত্তরণ ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান ডিআইজি হাবিবুর রহমানের উদ্যোগে এই লক্ষ্য বাস্তবায়নে উত্তরণ ফাউন্ডেশনটি প্রতিষ্ঠিত হয়। গাইবান্ধার পুলিশ সুপার ইঞ্জিঃ আবদুল মান্নান মিয়া ব্যক্তিগত উদ্যোগে এ জেলার হিজড়া জনগোষ্ঠীর জীবন মান উন্নয়নে এই উদ্যোগ গ্রহণ করেন। তাঁর প্রচেষ্টায় এবং অনুরোধে ঢাকাস্থ উত্তর ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান তার উত্তরণ ফাউন্ডেশনের মাধ্যমে গাভী প্রদানসহ হিজড়াদের কল্যাণে নানা উদ্যোগ গ্রহণ করেন।

গাইবান্ধায় হিজড়াদের উত্তরণ ডেইরী ফার্ম উদ্বোধনকালে এ জেলার হিজড়া জনগোষ্ঠীর উন্নয়নে গাভী ও বাছুর প্রদান ছাড়াও আরো নানা কল্যাণমূলক প্রকল্প বাস্তবায়িত হবে বলেও ডিআইজি হাবিবুর রহমান তাঁর বক্তব্যে আশ্বস্ত করেন।

তিনি আরো বলেন, হিজড়া দেখে আপনারা ভয় পাবেন না কারন তারা আমাদেরই সন্তান ৷ স্বয়ং মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা হিজড়াদেরকে নিজের সন্তানের মতো করে বুকে টেনে নিয়েছেন ৷ হিজড়ারাও সে সময় প্রধানমন্ত্রীকে ‘মা’ সম্বোধন করে বলেন আমাদেরকে কেউ পরিচয় দিতে চায় না ? আজ থেকে আপনিই আমাদের ‘মা’ ৷ আপনার মতো দরদ দিয়ে কতদিন যে আমরা মায়ের ভালবাসা পাইনি তা আমরা স্মরন করতেই পারছি না ৷ দরদী এ প্রধানমন্ত্রী হিজড়াদেরকে নিয়ে আগামীতে দেশের উন্নয়নে বিভিন্ন কর্মকান্ডে সম্পৃক্ত করবেন বলে ও আশ্বস্ত করেছেন এবং তৃতীয় লিঙ্গের এই জনগোষ্ঠিকে সামাজীক ও রাষ্ট্রীয় স্বীকৃতি প্রদান করে তাদের অধিকার আদায় ছাড়াও উন্নত জীবন যাপনের সুযোগ সৃষ্টি করে দিয়েছেন ৷ ডিআইজি আরও উল্লেখ করেন অবহেলিত এই জনগোষ্ঠী আমাদের সমাজে নানাভাবে নিগৃহীত, অধিকার বঞ্চিত এবং অমানবিক জীবন যাপন করছে। সুতরাং তাদের কল্যাণে পাশে দাঁড়ানোর জন্য সর্বস্তরের মানুষের প্রতি তিনি আহবান জানান।

 

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত