প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

adv 468x65

২৮ সেপ্টেম্বর থেকে দুই দিনব্যাপী ‘১৯৭১ : মুক্তিযুদ্ধ, গণহত্যা ও বিশ্ব’ শীর্ষক আন্তর্জাতিক সম্মেলন

মো. ইউসুফ আলী বাচ্চু: গণহত্যা , নির্যাতন ও মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক গবেষণা কেন্দ্রের উদ্যোগে ঢাকায় অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে দুই দিনব্যাপী ‘১৯৭১ : মুক্তিযুদ্ধ, গণহত্যা ও বিশ্ব’ শীর্ষক আন্তর্জাতিক সম্মেলন।

শুক্রবার (২৮ সেপ্টেম্বর) সকাল ১০ টায় এই সম্মেলনের উদ্বোধন করবেন সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর। বৃহস্পতিবার (২৭ সেপ্টেম্বর) দুপুরে জাতীয় প্রেস ক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে এসব তথ্য জানান আয়োজক প্রতিষ্ঠান গণহত্যা, নির্যাতন ও মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক গবেষণা কেন্দ্র।

সংবাদ সম্মেলনে আয়োজকদের পক্ষে লেখক ও শিক্ষাবিদ অধ্যাপক মুনতাসির মামুন বলেন, বাংলাদেশসহ বিশ্বের ৮টি দেশের ২৬ জন গবেষক , বিশেষজ্ঞ, সাংবাদিক এই সম্মেলনে যোগ দিবেন। গতবছরও আমরা গণহত্যা বিষয়ক একটি আন্তর্জাতিক সেমিনার আয়োজন করেছিলাম। আমরা গণহত্যার ওপর বিশেষ গুরুত্ব আরোপ করছি। আমরা বিজয়ের বিষয়ে যতটা গুরুত্বারোপ করেছি গণহত্যা নির্যাতনের বিষয়ে ততটা করিনি। ১৯৭৫ সালের পর ইচ্ছাকৃতভাবেই গনহত্যার বিষয়টিকে আড়াল করে রাখা হয়েছিল যাতে গণহত্যাকারীরা সমাজ এবং রাজনীতিতে পুনর্বাসিত হতে পারে। তাদের এই কৌশল সফল হয়েছে। অন্যদিকে আন্তর্জাতিক ভাবেও গণহত্যার বিষয়টিকে ইচ্ছাকৃতভাবে এড়িয়ে যাওয়া হয়েছে। অথচ দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পরে পৃথিবীতে এতো কম সময়ে এতো বেশি মানুষ হত্যার ঘটনা ঘটেনি।

ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির সভাপতি শাহরিয়ার কবির বলেন, ১৯৭১ সালে পাকিস্তানিরা বাংলাদেশের যে গণহত্যা চালিয়েছিল ছিল পাকিস্তানিরা যদি তাদের করতো তাহলে পাকিস্তানে আজও হচ্ছে, তা হতো না।

বাংলাদেশ যে গণহত্যার বিচার হয়েছে বিশ্বের আর কোন দেশে এ রকম নজির নেই, তাই নিঃসন্দেহে এই বিচারকার্য ভালো কাজ। বাংলাদেশের সরকারি পর্যায়ে আন্তর্জাতিকভাবে দেশের গণহত্যা দিবসের কোন উদ্যোগ নেয়া হয়নি আমরা আশা করব অতি দ্রুত সরকার আন্তর্জাতিক পর্যায়ে এর উদ্যোগ নেবেন।

সংবাদ সম্মেলনে আরও উপস্থিত ছিলেন ভারতের জাতীয় গবেষণা অধ্যাপক ডক্টর জয়ন্ত কুমার রায়, বেলজিয়ামের পাওলো কাসাকা, মিশরের মহসিন আরশি, ভারতের ডঃ কৌশিক বন্দ্যোপাধ্যায়, কম্বোডিয়ার কিউ ডং প্রমুখ।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত