প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ঢাকায় ৩২ হাজার কোটি টাকা ব্যয়ে বৃত্তাকার রেলপথ

আসিফ খান : রাজধানীর যানজট নিরসনে ৩২ হাজার কোটি টাকা ব্যয়ে রেলপথ প্রকল্প শুরু হচ্ছে। ঢাকার চারদিকে প্রায় ৮২ কিলোমিটার বৃত্তাকার রেলপথ নির্মাণ করা হবে। প্রকল্পের নির্মাণ সময় ৩ বছর ধরা হয়েছে বলে জানিয়েছে রেলপথ মন্ত্রনালয়।

প্রকল্পটি বাস্তবায়নে জাইকা, বিশ্বব্যাংক, এডিবিসহ অন্য আরও কয়েকটি সংস্থার উন্নয়ন-সহযোগিতা চাওয়া হয়েছে। নির্ধারিত সময়সীমার মধ্যেই উন্নয়ন সহযোগীদের কাছ থেকে সাড়া পাওয়া না গেলে, নিজস্ব অর্থায়নেই প্রকল্পটির কাজ শুরু করার পরিকল্পনা করেছে সরকার। প্রস্তাবতা ও সম্ভাব্যতা অনুযায়ী বৃত্তাকার এই রেলপথের স্টেশন থাকবে ২০টি। ইতিমধ্যে প্রকল্পের প্রাক সম্ভাব্যতা যাচাই সম্পন্ন হয়েছে।

গাজীপুরের টঙ্গী থেকে শুরু করে আবার টঙ্গী স্টেশনে এসে শেষ হবে এই বৃত্তাকার রেলপথ। এরমধ্যে টঙ্গী, দৌর, উত্তরা, বেরুলিয়া মিরপুর চিড়িয়াখানা, শংকর, নবাবগঞ্জ, বাবুবাজার, সদরঘাট, শ্যামপুর, ডেমরা, পূর্বাচল ও তেরমুখ হয়ে পুনরায় টঙ্গী গিয়ে শেষ হবে।

প্রকল্পটির বাস্তবায়নের জন্য আসছে ২০১৮-২০১৯ অর্থবছরের বাজেটে প্রায় আড়াই হাজার কোটি টাকা বরাদ্দ দেয়ার কথা জানিয়েছে অর্থ মন্ত্রনালয়। প্রাথমিকভাবে ধারনা করা হচ্ছে, এ প্রকল্পে ৩২ হাজার কোটি টাকা ব্যয় হবে। তবে ভবিষ্যতে এ ব্যয় বাড়তে পারে। এ জন্য বিদেশি কোন বিনিয়োগকারী পেলে সরকার তা সানন্দে গ্রহণ করবে।

রেলপথমন্ত্রী মো. মজিবুল হক বলেছেন, যানজন নিরসনে ঢাকার চারদিকে বৃত্তাকার রেলপথ নির্মাণের পরিকল্পনা নেয়া হয়েছে। ইতিমধ্যে এর প্রাক-সম্ভাব্যতা যাচাই করা হয়েছে। এ প্রকল্পের সম্ভাব্য সমীক্ষা প্রস্তাব ২৭ ডিসেম্বর পরিকল্পনা কমিশনে অনুমোদিত হয়েছে। প্রকল্পটি বাস্তবায়নে জন্য বিনিয়োগকারী প্রতিষ্ঠান খোঁজা হয়েছে। বৃত্তাকার এই রেলপথ প্রকল্প বাস্তবায়নের পরিকল্পনা অনেক আগের।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত