প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

 ভোক্তারা অসাধু ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে মামলা করতে পারেন

ইকতেদার আহমেদ : বিএসটিআই যে বাজারের সব এনার্জি ড্রিংস নিষিদ্ধ করেছে এটি তো তারা যথাযথ পরীক্ষা-নিরিক্ষা করেই করেছে। দেশে যে আইন আছে বা বিধি আছে এটি মেনেই করা হয়েছে। এধরনের ব্যবস্থা আরো আগেই গ্রহণ করা দরকার ছিলো। বিভিন্ন এনার্জি ড্রিংসের পরীক্ষা করে ক্যাফেইনের উপস্থিতিটা ক্ষতিকর মাত্রায় পাওয়া গেছে।

প্রতি কেজিতে ১৪৫ এমজি ক্যাফেইন থাকার কথা থাকলেও, প্রতি কেজিতে ক্যাফেইন পাওয়া গেছে ৩২০ এমজির চেয়েও  বেশি। দীর্ঘদিন  ধরে এ এনার্জি ড্রিংসগুলো বাজারে বিক্রি হচ্ছেএবং ভোক্তারাও পান করছে। ভোক্তাদের যা ক্ষতি হওয়ার তাতো হয়েছেই। পৃথিবীর অন্য কোন রাষ্ট্র হলে ভোক্তারা এর বিরুদ্ধে মামলা করতেন। ভোক্তারা যারা এটি উৎপাদন করেছে তাদের কাছ থেকে বিপুল অঙ্কের ক্ষতিপূরণ পেতো। এসব যারা উৎপাদন করছে তারা তো বিপুল অঙ্কের টাকা লাভ করছে। তাই আমার মনে হয়, এ সব ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে মামলা করে ক্ষতিপূরণ আদায় করা উচিত।

পরিচিতি : সাবেক জজ, সংবিধান, রাজনীতি ও অর্থনীতি বিশ্লেষক/মতামত গ্রহণ : ফাহিম আহমাদ বিজয়/সম্পাদনা : রেজাউল আহসান

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ