প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

adv 468x65

সাক্ষাৎকারে রুহিন হোসেন প্রিন্স
এক দু:শাসনের পরিবর্তে আরেক দু:শাসন প্রতিস্থাপন করতে চাই না

রফিক আহমেদ : বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি’র) কেন্দ্রীয় সম্পাদক রুহিন হোসেন প্রিন্স বলেছেন, এক দু:শাসনের পরিবর্তে আরেক দু:শাসন প্রতিস্থাপন করতে চাই না। এ জন্যই আমাদের লড়াই হলো আওয়ামী দু:শাসনের অবসানের সাথে সাথে দ্বি-দলীয় ধারার অবসান ঘটিয়ে বাম গণতান্ত্রিক বিকল্প শক্তি প্রতিষ্ঠা করা।তা হলেই দেশবাসীকে দু:শাসন থেকে মুক্তি দেয়া যায়। মঙ্গলবার পুরানা পল্টনে পার্টি অফিসে একান্ত সাক্ষাৎকারে তিনি এসব কথা বলেন।

সিপিবি’র কেন্দ্রীয় সম্পাদক বলেন, আমরা আওয়ামী দু:শাসনের অবসান চাই। তার অর্থ দু:শাসনের পরিবর্তে সুশাসন প্রতিষ্ঠিত করব। আমাদের দেশে দু:শাসনের অন্যতম ভিত্তি হলো লুটপাটের অর্থনীতি বহাল রেখে মুক্তবাজারের নামে রেখে যারা রাষ্ট্র ক্ষমতা চালাতে চায় তারা- ইচ্ছা করলেও রাজনীতির দুর্বৃত্তায়ন বন্ধ করে সুশাসন প্রতিষ্ঠা করতে পারবে না।

রুহিন হোসেন প্রিন্স বলেন, আমরা দু:খের সাথে দেখতে পাচ্ছি- কোন কোন দল দু:শাসনের বিরুদ্ধে কথা বলে আরেক দু:শাসনের হোতাদের সাথে নিয়েই আন্দোলনের কথা বলছেন। অনেকেই আবার আওয়ামী লীগ-বিএনপিসহ সমাজের কথাও বলছেন। এরমধ্যে প্রকারান্তরে দ্বি-দলীয় জোটের বাইরে বিকল্পকে খারিচ করে দেয়া হচ্ছে। প্রসঙ্গত বলতে চাই-মুক্তিযুদ্ধ ছিল আমাদের সর্বোচ্চ জাতীয় ঐক্য। এর মধ্যদিয়ে আমরা যে সংবিধান প্রতিষ্ঠা করে ছিলাম-জাতীয় ঐক্যের কথা বললে সেটিই বাস্তবায়ন করতে হবে।

তিনি বলেন, নব্বইয়ের গণঅভ্যুত্থানে আমরা যে রূপরেখা আচরণ বিধি করেছিরাম তার কথা বলতে হবে। এগুলোকে পরিত্যাগ করেছে আওয়ামী লীগ-বিএনপি এবং তাদের জোটে থাকা দলগুলো। তাই দেশ- দেশের মানুষকে বাঁচাতে লুটপাটের অর্থনীতি বাতিল করে মুক্তিযুদ্ধের ধারার অর্থনৈতিক ব্যবস্থা প্রতিষ্ঠা করার সংগ্রামকে এগিয়ে নিতে হবে। সিপিবি ও বাম জোট নিষ্ঠার সাথে সেই কাজটি করে চলেছে এবং করবে।

তিনি আরও বলেন, আমরা বিনয়ের সাথে তাদের বলতে চাই, আমরা যে আদর্শের রাজনীতি করি- সেই রাজনীতির অংক বুঝেই কথা বলছি। তাদেরকে নোবেল বিজয়ী অমর্ত্য সেনের সম্প্রতি বলা কথা স্মরণ করিয়ে দিতে চাই। অমর্ত্য সেন বলেছেন, ‘আদর্শ নিয়ে রাজনীতি করছি’ বলতে লোকে এখন লজ্জা পায়, যে এতে আমরা বাস্তব থেকে বিচ্যুত হলাম।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত