প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

গুজরাট দাঙ্গা নিয়ে ‘ভুল’ স্বীকার করেছিলেন বাজপেয়ী

ওমর শাহ: ২০০২ এ গুজরাট দাঙ্গা। আর ২০০৪ এ হার। হারের পর নাকি সেই দাঙ্গাকেই ‘ভুল’ বলে উল্লেখ করেছিলেন ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী অটল বিহারী বাজপেয়ী।

কংগ্রেসের কাছে পরাজয় স্বাভাবিকভাবেই মেনে নিতে পারেননি তিনি। এরপরই নাকি ‘ভুল’ স্বীকার করেন তিনি। পরবর্তীকালে বিস্ফোরক এই দাবি করেন ‘র’ এর সাবেক কর্তা এ এস দুলত। বাজপেয়ী প্রধানমন্ত্রী থাকাকালীন কাশ্মীর সংক্রান্ত পরামর্শদাতা ছিলেন দুলত।

এক টিভি চ্যানেলকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা ‘র’ এর সাবেক প্রধান দাবি করেছিলেন, ‘বাজপেয়ীর সঙ্গে শেষবার সাক্ষাতের সময় ২০০২ এর গুজরাট হিংসা নিয়ে ‘ভুল’ স্বীকার করেন বাজপেয়ী।’ সেসময় তাঁর মুখে বিষন্নতার ছায়া দেখেছিলেন বলেও দাবি করেন দুলত। তাঁর দাবি, গোধরা-পরবর্তী গুজরাট সহিংসতাকে বাজপেয়ী বরাবরই ‘ভুল’ বলে মনে করেছেন।

দুলত বলেন, বিজেপির সেই পরাজয়ের পর বাজপেয়ীর মুখোমুখি হয়ে কী বলবেন বুঝতে পারছেন না দুলত। কোনোরকমে বলেছিলেন, ‘এটা কী হল স্যার?’ উত্তরে বাজপেয়ী তাঁকে বলেছিলেন, ‘কংগ্রেসও বোধহয় বুঝতে পারছে না যে এটা কী হল। পরে কিছুটা ভেবে বলেছিলেন, ‘সায়াদ হামারে সে গুজরাট মে গলতি হো গ্যায়ি।’ একথা বলার পর বিষন্ন হয়ে পড়েন তিনি।

২০০২ সালে গুজরাট সহিংসতার সময় সেখানকার মুখ্যমন্ত্রী ছিলেন নরেন্দ্র মোদি। ফলে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থার সাবেক প্রধানের এই মন্তব্যে নতুন করে বিতর্ক হয়েছিল পরবর্তীকালে। সূত্র: ডেইলি সিয়াসাত

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত