প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

‘আসামের ঘটনায় বাংলাদেশ-ভারত সম্পর্কে টানাপোড়েন সৃষ্টি করতে পারে’

আশিক রহমান : অবৈধ বাংলাদেশি অভিবাসী শনাক্ত করার নামে ৪০ লাখ মানুষকে উদ্বেগ-উৎকণ্ঠার মধ্যে রাখার ঘটনা অনাকাঙ্খিত বলে মনে করেন ইতিহাসবিদ অধ্যাপক ড. সৈয়দ আনোয়ার হোসেন। এ প্রতিবেদকের সঙ্গে আলাপকালে তিনি বলেন, নাগরিকত্ব হারানোর শঙ্কায় আসামে ৪০ লাখ মানুষ। অবৈধ বাংলাদেশি অভিবাসীদের শনাক্ত করার নামে ৪০ লাখ মানুষকে অনিশ্চয়তার মধ্যে ফেলা অনাকাঙ্খিত একটি ঘটনা। পশ্চিমবঙ্গের মুখমন্ত্রী পর্যন্ত এই উদ্যোগের কঠোর সমালোচনা করেছেন। এ ধরনের উদ্যোগ বাংলাদেশ-ভারত সম্পর্কে বাড়তি টানাপোড়েন সৃষ্টি করতে পারে।

তিনি আরও বলেন, কী দরকার ছিল এই তালিকা তৈরি করার? ওপার-এপার বাংলার মানুষের মধ্যে যাতায়াত থাকবেই। এটা আমাদের মেনে নিতেই হবে বলে মনে করি আমি। মানুষ তো ভাগ হতে পারে না। মানুষের চলাচল থাকে, অভিবাসনও থাকে। এই বাস্তবতা মেনে নিতে হবে আমাদের।

এক প্রশ্নের জবাবে অধ্যাপক ড. সৈয়দ আনোয়ার হোসেন বলেন, বাংলাদেশ থেকে যদি কোনো বাঙালি আসামে গিয়ে থাকে সেখানকার শ্রমবাজারে তারা সস্তা শ্রম দিচ্ছে। আসামের যে আশ্চর্য উন্নতি তার পেছনে বাঙালিদের অনেক অবদান আছে। রাখাইনে মিয়ানমার যে সমস্যা তৈরি করেছে তার ফলাফল কী হয়েছে তা থেকে শিক্ষা নিতে পারে ভারত।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ