প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

আদমদীঘিতে গলাকাটাসহ দুই লাশ উদ্ধার

আবু মুত্তালিব মতি, আদমদীঘি (বগুড়া) প্রতিনিধি: বগুড়ার আদমদীঘিতে মিনারা খাতুন (১৯) নামের এক নারী ও অজ্ঞাত (৩৫) এক ব্যক্তির গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গত শুক্রবার বিকেলে লাশ দুটি উদ্ধার করা হয়। এ ব্যাপারে আদমদীঘি থানায় পৃথক দুইটি ইউডি মামলা হয়ছে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, আদমদীঘির বেজার গ্রামের নুর মোস্তফার মেয়ে মিনারা খাতুনের ৬ মাস আগে দুপচাঁচিয়ার মাজিন্দা গ্রামে জাহাঙ্গীর আলমের সাথে বিয়ে হয়। বিয়ের পর স্বামী ঢাকায় থাকায় মিনারা খাতুন পিত্রালয়ে আসে। কিন্তু মিনারা খাতুন স্বামী বাড়ী যাবেনা বলে তার পরিবারকে জানিয়ে দিলে তার উপড় নানাভাবে নির্যাতন করতো।

গত বৃহস্পতিবার মিনারা খাতুনকে তার পরিবারের লোকজন শারীরিকভাবে নির্যাতন করলে সে ক্ষোভে বিষপান করে। মুমূর্ষু অবস্থায় মিনারাকে প্রথমে আদমদীঘি ও পরে নওগাঁ সদর হাসপাতালে নেয়ার পথে ওই দিন সন্ধ্যায় মিনারা মারা যায়।

ঘটনা তদন্তকারি উপ-পরিদর্শক মোকলেছার রহমান জানান, মৃত্যুটি রহস্যজনক হওয়ায় গতকাল শুক্রবার দুপুরে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

অপরদিকে ওই দিন দুপুরে পুলিশ উপজেলার ঢেকরা বেলতলী জনৈক সাইদুর রহমানের পুকুর পাড়ে অজ্ঞাত ব্যক্তির গলা কাটা মরদেহ উদ্ধার করে। তার পড়নে বেল্টসহ কালো জিন্সের ফুলপ্যান্ট পড়া ও পার্শ্বে একজোড়া জুতা পড়ে ছিল।

পুলিশ পরিদর্শক মুসা মিয়া জানান, মরদেহটি প্রায় ১২দিন আগের গন্ধ ছড়িয়ে পড়লে স্থানীয়রা টের পেয়ে পুলিশে সংবাদ দিলে মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ