প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

‘যাদের কাউন্সিলর প্রার্থী দিব তাদের জেলে ভরে দিবে’

রবিন আকরাম : বরিশাল সিটি নির্বাচন নিয়ে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মীর্জা আব্বাস বলেন, ‘আপনারা বলতে পারেন আমরা কাউন্সিলর প্রার্থী দিইনি, কিন্তু দিবো কিভাবে? যাদের দিবো তাদের তো জেলে পুরে দিবে। এখন তাদের বাড়িতে তল্লাশি চালাচ্ছে, তাদের বাড়িতে হামলা হচ্ছে, বাড়িতে থাকতে পারছে না।

বৃহস্পতিবার দুপুরে বরিশাল নগরের সদর রোডে বিএনপির দলীয় কার্যালয়ে ধানের শীষের সমর্থনে সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

মীর্জ আাব্বাস অভিযোগ করেন, যারা কাউন্সিলর প্রার্থী হয়েছেন তাদের প্রথমে টাকা পয়সার লোভ দেখানো হয়েছে, পরে জোরজবস্তি, রিজিকের ওপরে হাত দেওয়া হয়েছে, সর্বোশেষ এখন পুলিশি হয়রানি করা হচ্ছে। এজন্য আমাদের অনেক প্রার্থী প্রত্যাহার করতে বাধ্য হয়েছেন, নয়তো লুকিয়ে আছেন।’

ক্ষোভ প্রকাশ করে মীর্জা অব্বাস বলেন, ‘আওয়ামী লীগ গাড়িতে স্টিকার লাগাচ্ছে, ঠেলাগাড়িতে করে নৌকা নিয়ে যাচ্ছে, নৌকার গেট সাজানো হচ্ছে, নৌকা বানিয়ে আলোকসজ্জা করছে। তারা আচরণবিধি মানছে না। কিন্তু তাদের কিছু হচ্ছে না। বরিশালের বিভিন্ন উপজেলার চেয়ারম্যান, ইউপি চেয়ারম্যান, পৌরমেয়ররা অস্ত্রধারী ক্যাডারদের নিয়ে বরিশালের বিভিন্ন বাসায় অবস্থান করছে। এর বড় প্রমাণ কিছুদিন আগে লঞ্চঘাটে অস্ত্র নিয়ে একটি ঘটনা ঘটেছে। বরিশালে এখনো অস্ত্রের মহড়া চলছে।’

তিনি বলেন, ‘বরিশাল সিটি করপোরেশনের বর্ডার এলাকায় বিভিন্ন বাসা বাড়িতে বহিরাগত প্রচুর লোক নিয়ে আসা হয়েছে। যে লোকগুলো নির্বাচনের দিন দেখাবে ভোটার আছে ভোটকেন্দ্রে, নয়তো কোনও ঝামেলা করবে। আমি আশা করি, ২৪ ঘন্টার মধ্যে পুলিশ প্রশাসন তাদের বের করে দিবে নয়তো গ্রেফতার করবে।’ বাংলা ট্রিবিউন

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ