প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

পীরভাগ্যে পাকিস্তানের মসনদে ইমরান!

ওমর শাহ: গত কয়েকটা দিন চোখ ছিল পাকিস্তান নির্বাচনে। বেশ আগ্রহ নিয়ে। আজ ক্ষমতায় আসা স্বপ্নে বিভোর ইমরানের জন্য পাকিস্তানে নতুন সূর্য উদয় হলো। ৪২ শতাংশ ভোট গণনায় ইমরান খানের দল ১১৯ টি আসনে জয়ী। নওয়াজের দল পেয়েছে ৬১টি (জিও নিউজ উর্দু)। সব মিলিয়ে একক সংখ্যাগরিষ্ঠ হোক আর জোট সরকার হোক প্রধানমন্ত্রীর পদটি পেতে যাচ্ছেন ইমরান খানই। ইমরান খানের এ সাফল্যের রহস্য কী? আইএসআই? সেনাবাহিনী? নাকি সদ্য বিয়ে করা বউ পীর বুশরা বিবি? আড়ালে যেই কলকাঠি নাড়াক তবে এ জয়ের জন্য বুশরা বিবিকে নিয়ে কৌতুকের শেষ নেই।

গত বছর বুশরা বিবিকে বিয়ে করার পরই ইমরানকে বিজয়মাল্য পরাবেন এ পীর বউ পাকিস্তানের সংবাদ মাধ্যমে এ নিয়ে ছিল রমরমা নিউজ। আজ তাই সত্যি হলো। বিয়ের পর ইমরান খান জানান, একদিন বুশরা এসে তাকে জানান, তিনি হজরত মোহাম্মদ (সাঃ) কাছ থেকে স্বপ্নাদেশ পেয়েছেন। স্বপ্নে তিনি নাকি বুশরাকে বলেছেন ইমরানকে বিয়ে করার জন্য। তাহলেই নাকি ইমরান সমস্ত বাধা পেরিয়ে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী হতে পারবেন। এবং সেটা হলে পাকিস্তান এই জর্জরিত অবস্থা থেকে মুক্তি পাবে ও অসাধারণ দেশে উন্নীত হবে।’

এছাড়াও সম্প্রতি ইমরান খান রেহামকে বিয়ে করা তার জীবনের সবচেয়ে বড় ভুল ছিল বলে মন্তব্য করেন। ফলে রেহাম ছিল ভুল আর বুশরা এনে দিল জয় এমনটাই মনে করছেন অনেকে। ক্ষমতায় আসার জন্য ইমরান খানের ২৪ বছরের পরিশ্রমের ফল এটি। ১৯৯৪ সালে গঠন করেছিলেন পাকিস্তান তেহরিকে ইনসাফ। হাটি হাটি পা পা করে আজ প্রধানমন্ত্রীর পদে ইমরান।

এছাড়াও নির্বাচনে প্রার্থীদের প্রচারণায় গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠেছিল দেশটির অসংখ্য সুফি নেতা বা পীর। তারা বিভিন্ন প্রার্থীর পক্ষে তাদের সমর্থন ঘোষণা করে তাদের পক্ষে ভক্ত অনুসারীদের ভোট দেয়ার আদেশ দিয়েছেন। এবার নির্বাচনে পীরদের সবচেয়ে বেশি সাপোর্ট পেয়েছেন ইমরান খান। নির্বাচনের আগে ইসলামাবাদের উপকণ্ঠে একটি কমিউনিটি সেন্টার, যেখানে সাধারণত বিয়ে শাদীর অনুষ্ঠান হয়, সেখানে অনুষ্ঠিত হয়েছে কয়েক শ’ পীর বা সুফি সাধকদের একটি সম্মেলন। সেই সম্মেলনে ইমরান খানকে সমর্থণ দেওয়া হয়। ঘরেও পীর বউ, বাইরেও পীর। কেউ ঠেকায় ইমরান খানকে। ঠেকানো গেল না। পীরদের হাত ধরেই ইমরানের স্বপ্ন জয় সত্যি হলো।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ