প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

কক্সবাজারের রামুর মিথাছড়িতে পাহাড় ধসে চার শিশুসহ নিহত ৫

এম আমানুল্লাহ, কক্সবাজার প্রতিনিধি: কক্সবাজার শহরে পৃথক পাহাড় ধসের ঘটনায় চার শিশুসহ পাঁচজন নিহত হয়েছেন।বুধবার ভোর ৫টার দিকে কক্সবাজার শহরের দক্ষিণ রুমালিয়ারছড়ার এবিসি ঘোনা এলাকা ও রামু উপজেলার পানেরছড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। ইতোমধ্যেই ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা উদ্ধার কাজে অংশ নিয়েছেন।

এদিকে কক্সবাজারের রামুর মিথাছড়িতেও পাহাড় ধসের ঘটনা ঘটতে পারে বলে আগেই সতর্ক করা হয়েছিল বলে দাবি করেছে স্থানীয় প্রশাসন।

কক্সবাজার জেলা প্রশাসক সূত্র বিষয়টি নিশ্চিত করেছে।

পাহাড় ধসের ঘটনায় স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, কক্সবাজার শহরের দক্ষিণ রুমালিয়ারছড়া বাঁচামিয়ার ঘোনা এলাকায় পাহাড় ধসে একই পরিবারের চার শিশু নিহত হয়েছে।

এবিসি ঘোনা রুমালিয়ারছরা বাঁচামিয়াঘোনা এলাকার নিহত চার ভাই-বোন হলো- জামাল হোসেনের মেয়ে মর্জিয়া আকতার (১৪), কাফিয়া আকতার (১০), আবদুল খাইর (৮) ও খাইরুন্নেছা (৬)। অন্যদিকে রামু উপজেলার দক্ষিণ মিঠাছড়ি ইউনিয়নের পানেরছড়া গ্রামে নিহত শিশুর নাম মোর্শেদ আলম (৬)। সে ওই এলাকার জাকির হোসেনের ছেলে।

 

রুমালিয়ারছরা বাঁচামিয়াঘোনা এলাকার নিহত চার ভাই-বোনের মামা খোরশেদুল আলম আমাদেরসময় ডট কমকে জানান, ভোরে উঠে নিহতদের মা বাড়ির বাইরে কাজ করছিলেন। এ সময় হঠাৎ বাড়ির পাশের পাহাড় ধসে ঘরের ওপর পড়ে। এতে ঘুমন্ত চার শিশু মাটির নিচে চাপা পড়লে মা চিৎকার করায় আশপাশের লোকজন এগিয়ে আসে। তাৎক্ষণিক স্থানীয় মসজিদের মাইকেও ঘোষণা দিয়ে মানুষ ডাকা হয়। পরে তাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

কক্সবাজার সদর হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক জানান, হাসপাতালে আনার আগেই তারা মারা যায়।

কক্সবাজারের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আফরাজুল হক টুটুল জানান, ভারী বৃষ্টিপাতে ভোরে দক্ষিণ রুমালিয়ারছড়া এলাকায় ওই চার শিশুর মা বাড়ির বাইরে কাজ করছিলেন। এ সময় চার শিশুই ঘরে ঘুমিয়ে ছিলেন। হঠাৎ পার্শ্ববর্তী পাহাড় বাড়ির ওপর ধসে পড়ে। এতে ঘুমন্ত চার শিশু মাটির নিচে চাপা পড়ে।

অন্যদিকে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের কক্সবাজারের ইনচার্জ শেফায়েত হোসেন বলেন, রামু উপজেলার দক্ষিণ মিঠাছড়ি ইউনিয়নের পানেরছড়া গ্রামে পাহাড়ধসে মোর্শেদ আলম নামে এক শিশু নিহত হয়েছে।

কক্সবাজারের ভারপ্রাপ্ত জেলা প্রশাসক কাজী আবদুর রহমান আমাদেরসময় ডট কমের কাছে তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ