প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ডেডিভ ওয়ার্নারের লক্ষ্য ২০১৯ বিশ্বকাপ

স্পোর্টস ডেস্ক: ডেডিভ ওয়ার্নারের সবকিছু এলোমেলো হয়ে গেছে। ফুল দিয়ে সাজানো পথে নিজেই বিছিয়েছেন কাঁটা। বল টেম্পারিংয়ে আন্তর্জাতিক ও অস্ট্রেলিয়ান ঘরোয়া ক্রিকেটে এক বছরের জন্য নিষিদ্ধ হয়েছেন ডেডিভ ওয়ার্নার। তবে হার মানছেন না এ বিধ্বংসী ওপেনার। ইতোমধ্যে লক্ষ্যও ঠিক করছেন ২০১৯ সালের বিশ্বকাপকে সামনে রেখে।
নিষিদ্ধ হওয়ার পর প্রথমবার অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে নেমেছেন ওয়ার্নার। ডারউইনে নর্দার্ন টেরিটোরি স্ট্রাইক লিগে ৩২ বলে ৩৬ রান করে জানান দিয়েছেন সঠিক পথেই আছেন তিনি। সামনের বছরের শুরুতে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফেরার আগে নিজেকে গুছিয়ে নিতে প্রস্তুতি চালিয়ে যাচ্ছেন অস্ট্রেলিয়ান এ ওপেনার।
দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টেস্ট সিরিজে বল টেম্পারিংয়ে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (সিএ) কঠিন শাস্তি দিয়েছে তাকে। শুরুতে ভেঙে পড়লেও ওয়ার্নার এখন বলছেন, বিশ্রামটা দরকার ছিল তার! অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে প্রথমবার ম্যাচ খেলে ৩১ বছর বয়সী ওপেনার সংবাদমাধ্যমকে বলেছেন, ‘যখন সতেজ থাকি, তখন খুব ভালো থাকি। আপনি যদি গত ১২ মাসের দিকে তাকান, দেখবেন (অস্ট্রেলিয়ার হয়ে) প্রত্যেক ম্যাচে আমি খেলেছি।’
সিরিজের কথাও উল্লেখ করেছেন তিনি, ‘দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে টেস্টের আগে মাত্র পাঁচ দিন সময় পেয়েছিলাম বিশ্রামের। দলকে আমি নেতৃত্ব দিয়েছি (অস্ট্রেলিয়ায় হওয়া ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি) ও নিউজিল্যান্ডে, যখন অন্য খেলোয়াড়রা বিশ্রামের সুযোগ পেয়েছে। তাই আমি জানতাম বিরতিটা আমার জন্য ভালো, তাছাড়া আপনি তো আর রাতারাতি ফর্ম হারিয়ে ফেলবেন না!’

সামনের বছরের মে-জুনে হবে বিশ্বকাপ। ইংল্যান্ডের এই আসরের আগে ওয়ার্ম-আপের সুযোগ পাবেন বলে মনে করেন ওয়ার্নার। ২০১৯ সালের আসরকেই লক্ষ্য বানিয়েছেন তিনি, ‘বিশ্বকাপের আগে ওয়ার্ম-আপ ম্যাচ খেলা যায়, পাশাপাশি আমি ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগও (আইপিএল) খেলব।’ সঙ্গে যোগ করলেন, ‘সুতরাং, অনেক ক্রিকেট খেলার সুযোগ পাওয়ার সঙ্গে বিশ্বমানের সব খেলোয়াড়দের পাবো প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে, যা আমার প্রস্তুতিতে বাড়তি রসদ যোগ করবে।’
আপাতত তার প্রস্তুতি ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগ নিয়ে। সামনের মাসে শুরু হতে যাওয়া এই টি-টোয়েন্টি লিগে সেন্ট লুসিয়া স্টারসের হয়ে খেলবেন তিনি। এএফপি, বাংলাট্রিবিউন

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ