প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

চ্যালেঞ্জ মানুষকে করে যোগ্য, আগ্রহী ও উপযুক্ত!

প্রকৌশলী নওশাদুল হক : মানুষ আশরাফুল মাকলুকাত বা সৃষ্টির সেরা জীব। দুনিয়াতে সৃষ্টিকর্তা যা কিছু তৈরী করেছেন, তার সবকিছুই মানুষের প্রয়োজনে বা মানব সেবার জন্যে। অনেকক্ষেত্রে আবার মানুষও মানুষের জন্যে। মানুষের প্রত্যাশা অনুযায়ী প্রাপ্তি হলেই কেবল ঠিক আছে। আর, এর ব্যত্যয় ঘটলেই বিপত্তি কিংবা অসংগতি। অসংগতি বিহীন মানবসমাজ কল্পনা বহির্ভূত। আমাদের দেশেরমতো উন্নয়নশীল দেশসমূহে দারিদ্রতা, মাদকাসক্তি, ভিক্ষাবৃত্তি, পাচার, বেকারত্ব, ভেজাল খাবার, শ্রেণী বৈষম্য, শিশু শ্রম, কিশোর অপরাধ, চুরি, ডাকাতি, সন্ত্রাস, রাজনৈতিক অস্থিরতা, পতিতাবৃত্তি, নারি নির্যাতন, যৌতূক, বাল্যবিবাহ, বহুবিবাহ, যানজট, সড়ক দুর্ঘটনা, দুর্নীতি, ভেজাল ঔষধ, ধর্ষণ, অপসংস্কৃতি, জলবায়ু পরিবর্তন, প্রাকৃতিক দুর্যোগ, আকাশ সংস্কৃতির আগ্রাসন, যুদ্ধ, রাষ্ট্রীয় সন্ত্রাস, নারী-পুরুষ বৈষম্য, নিরক্ষরতা, অপুষ্টি, অধিক জনসংখ্যা, সুশাসনের অভাব, মজুরি বৈষম্য, ধর্মীয় কুসংস্কার, শহরায়নের প্রবণতা ও সামাজিক নিরাপত্তাহীনতাসহ আরও অসংখ্য অসংগতি এক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য।

আর এহেন সামাজিক অসংগতি সমূহকেই আমরা সমস্যা হিসাবে চিহ্নিত করে থাকি। ফলশ্রুতিতে এই অসংগতি সমূহ আমাদের ঘাড়ে আরও বেশি করে ক্রমশঃই চেপে বসতে থাকে। সমস্যার কথা শুনলেই মানুষ মানসিকভাবে দুর্বল হয়ে পড়ে। সুস্থ মানুষও পড়ে ধীরে ধীরে অসুস্থ। মনের বিদ্যমান শক্তিটুকুও হারাতে বসে সে। আর মনের ঝোর হারিয়ে ফেলায় শারিরিক অক্ষমতা মানুষকে ক্রমে ক্রমেই গ্রাস করতে থাকে। পক্ষান্তরে এই অসংগতি সমূহকে সমস্যা না ভেবে চ্যালেঞ্জ হিসাবে নিলেই বৃদ্ধি পেতে থাকে মানসিক শক্তি, শারিরিক উদ্যম এবং জীবনের গতি। যে কোন চ্যালেঞ্জই মানুষকে অধিক হারে চার্জ করে, উজ্জিবিত করে ও সাথে সাথে বাড়িয়ে দেয় মনোবল। চ্যালেঞ্জ মানুষকে করে যোগ্য, আগ্রহী ও উপযুক্ত। যে ব্যক্তি, সমাজ কিংবা রাষ্ট্র যত বেশি চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় সচেষ্ট, সে জাতি ততই অসংগতিমুক্ত। আর অসংগতি বিহীন সমাজ বা রাষ্ট্রগুলোই উন্নত রাষ্ট্র হিসেবে বিশ্বব্যাপী পরিচিত।

এক্ষেত্রে বাংলাদেশও এখন আর পিছিয়ে নেই। বাংলাদেশের সরকার ও জনগন তাদের বিদ্যমান সামাজিক অসংগতি সমূহকে আজ আর সমস্যা হিসেবে দেখতে রাজী নয়। ইতিমধ্যে অনেক সামাজিক অসংগতি সমুলে বা আংশিক বিতাড়িত করে বাংলাদেশ আজ মধ্যম আয়ের মহাসড়কে প্রবেশ করেছে। সেদিন হয়তবা আর খুব বেশি দূরে নয়, যেদিন বাংলাদেশের মানুষ উন্নত রাষ্ট্রের নাগরিকদের ন্যায় সমস্যা নামক সমসাটিকে চিরতরেই ভূলে যাবে। সকল ক্ষেত্রেই চ্যালেঞ্জ নিতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করবে এবং জয়ী হবে নিশ্চই। আর এরকম জয় পেতে পেতেই বাংলাদেশ একদিন মাথা তুলে দাঁড়াবে স্বপ্নের উন্নত রাষ্ট্রের কাতারে।

লেখক: সভাপতি, ঢাবি সমাজকল্যাণ এ্যালামনাই ফোরাম/সম্পাদনা: মোহাম্মদ আবদুল অদুদ

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত