প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সরকার কোটা সংস্কারের সময় বলে দিলে তো ছাত্রলীগ দিয়ে পেটাতে হয় না : আফসান চৌধুরী

আশিক রহমান : কোটা সংস্কার অনেক বড় একটা বিষয়। বাস্তবায়নে সময় একটু লাগবেই। কিন্তু কত সময় লাগবে সরকার তা বলে দিলে তো ছাত্রলীগ দিয়ে আর পেটাতে হয় না বলে মন্তব্য করেছেন সিনিয়র সাংবাদিক ও রাজনৈতিক বিশ্লেষক আফসান চৌধুরী।

আমাদেরসময় ডটকম-এর সঙ্গে আলাপকালে তিনি বলেন, সরকার মনে করছে, কোটা সংস্কার কয়েকদিনে করা সম্ভব নয়, সেটা প্রাতিষ্ঠানিক বা অন্য যেকোনো কারণেই হোক। সরকার জনগণের চাপে কোটা বাতিলের সিদ্ধান্তটা নিয়েছিল কিনা এটাও ভেবে দেখার বিষয়। কারণ সরকারের উপর তো নানা ধরনের চাপ থাকে। এখন যদি সেই চাপ দুর্বল হয়ে থাকে তাহলে তো সরকার কোটা আন্দোলনকারীদের প্রতি সফট হবে না।

তিনি আরও বলেন, আমার মনে হয়, প্রধানমন্ত্রী যখন বলেছেন, তখন কোটা সংস্কার হবেই। কিন্তু এত বড় একটা সংস্কার কাজ সময় একটু বেশি লাগবেই। এই সময়টা কতদিন লাগবে তা যদি সরকার বলে দেয় তাহলে এরকম করে আবারও মিছিল করতে হয় না, ছাত্রলীগ দিয়ে পেটাতেও হয় না। সরকার কেন তা করছে না বোঝা যাচ্ছে না।

এক প্রশ্নের জবাবে আফসান চৌধুরী বলেন, সরকার তার ভাবমূর্তি নিয়ে এত চিন্তা করছে বলে তো মনে হয় না। কারণ সরকারের হাতে বিভিন্ন ধরনের লাঠি রয়েছে। প্রথমত, প্রাতিষ্ঠানিক লাঠি। সরকার ক্ষমতায় রয়েছে, এখানে ক্ষমতার লাঠি। বিভিন্ন সংস্থা রয়েছে, তাদের লাঠি। রাজনৈতিক দলের লাঠি। তাদের নিজেদের বাহিনীর লাঠি। তারপর ছাত্রলীগের লাঠি, যেটা আজকে আন্দোলনকারী ছাত্রদের উপর প্রয়োগ করা হয়েছে। এতে তো তারা লজ্জাও পাচ্ছে না যে, ছাত্রদের ধরে পেটানো হচ্ছে। সরকার তার ভাবমূর্তি নিয়ে দুশ্চিন্তায় করছে বলে মনে করার কোনো কারণ নেই। যেহেতু সরকারের সামনে কোনো দুশ্চিন্তা নেই!

তিনি বলেন, কোটা সংস্কার আন্দোলন জনপ্রিয় হয়েছে এ কারণে যে, বাংলাদেশের মধ্যবিত্ত শ্রেণির মানুষের সবচেয়ে বড় সংকট এটা। সরকার মধ্যবিত্তকে একরকম বাদ দিয়েই রেখেছে। কারণ যেহেতু তারা বড় রাজনৈতিক শক্তি নয়। এর মধ্যে কোটা সংস্কার আন্দোলনটা একটা বিষয়ে পরিণত হয়েছে, যেহেতু জনসমর্থন রয়েছে। সে কারণেই সরকার একটু বিরক্ত, কিন্তু চিন্তিত নয়।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত