প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বিশ্বকাপেও রিয়াল-বার্সার ৯-৯ সমতা!

স্পোর্টস ডেস্ক: বিশ্ব ক্লাব ফুটবল রিয়াল মাদ্রিদ ও বার্সেলোনার দ্বৈরথ মানেই হাড্ডাহাড্ডি লড়াই। ধ্রুপদী ফুটবলের সার্থক মহড়া। ক্লাব ফুটবলের গ-ি পেরিয়ে রিয়াল-বার্সার সেই জমজমাট প্রতিদ্বন্দ্বিতার মহড়া চলছে এবারের বিশ্বকাপেও! গ্রুপপর্বের সীমা পেরিয়ে সবে নকআউটপর্বে পা রেখেছে বিশ্বকাপ। তো গ্রুপপর্ব শেষে দেখা যাচ্ছে, এবারের বিশ্বকাপে রিয়াল-বার্সার দ্বৈরথে ৯-৯ সমতা! মানে বিশ্বকাপের গ্রুপপর্বে রিয়াল-বার্সা, দুই দলেরই খেলোয়াড়েরা গোল করেছেন সমান ৯টি করে। হাড্ডাহাড্ডি লড়াই কাকে বলে!

বিশ্বের ক্লাবগুলোর মধ্যে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক খেলোয়াড় এবারের বিশ্বকাপে প্রতিনিধিত্ব করছে ম্যানচেস্টার সিটি থেকে। ইংলিশ ক্লাবটির সর্বোচ্চ ১৬ জন খেলোয়াড় বিভিন্ন দেশের হয়ে খেলছে রাশিয়া বিশ্বকাপে। প্রতিনিধিত্বের সংখ্যার ভিত্তিতে ম্যান সিটির পরেই আছে রিয়াল মাদ্রিদ ও বার্সেলোনা। রিয়ালের ১৫ জন এবং বার্সেলোনার মোট ১৪ জন খেলোয়াড় বিভিন্ন দেশের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করছে বিশ্বকাপে।

তবে সংখ্যায় ম্যানচেস্টার সিটি সবার উপরে থাকলেও গোল করায় তাদের অবস্থান সেই ৯ নম্বরে। ম্যান সিটির খেলোয়াড়েরা বিশ্বকাপের গ্রুপপর্বে গোল করেছে মাত্র ৩টি। গোল করায় ম্যান সিটির খেলোয়াড়দের তুলনায় টটেনহামের খেলোয়াড়েরা বরং অনেক এগিয়ে। এই ইংলিশ ক্লাবটির খেলোয়াড়েরা বিশ্বকাপের গ্রুপপর্বে গোল করেছে তৃতীয় সর্বোচ্চ ৮টি। ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের খেলোয়াড়েরা করেছেন ৬ গোল। তারকাখচিত পিএসজির খেলোয়াড়েরা করেছেন মাত্র ৪ গোল। গোল করায় বায়ার্ন মিউনিখ, জুভেন্টাসের মতো ক্লাবগুলো শীর্ষ দশেই নেই!
যাই হোক, বিশ্বকাপের গ্রুপপর্বের ৪৮ ম্যাচে গোল হয়েছে মোট ১২২টি। আর ক্লাব ভিত্তিক খেলোয়াড় হিসেবে গোল করায় স্পেনের দুই জায়ান্ট রিয়াল-বার্সার ফুটবলাররাই এগিয়ে। এবং তাদের লড়াইটাও আগুন-তপ্ত। রিয়ালের খেলোয়াড়দের ৯ গোলের মধ্যে পর্তুগালের হয়ে ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো একাই করেছেন ৪ গোল। ক্রোয়েশিয়ার হয়ে লুকা মড্রিচ করেছেন ২ গোল। এছাড়া জার্মানির টনি ক্রুস এবং স্পেনের হয়ে নাচো ফার্নান্দো ও ইসকো করেছেন ১টি করে গোল।

বার্সেলোনার প্রতিনিধিদের মধ্যে গোল করায় এগিয়ে ব্রাজিলের ফিলিপে কুতিনহো, উরুগুয়ের লুইস সুয়ারেজ ও কলম্বিয়ান ডিফেন্ডার ইয়ারি মিনা। এই তিনজনেই করেছেন ২টি করে গোল। এ ছাড়া আর্জেন্টিনার লিওনেল মেসি, ক্রোয়েশিয়ার ইভান রাকিতিচ ও ব্রাজিলের পওলিনহো ১টি করে গোল করেছেন।
লিগ ভিত্তিক প্রতিনিধির বিচারে সবার উপরে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ। ইংলিশ লিগের ১০৬ জন ফুটবলার বিশ্বকাপে খেলছেন বিভিন্ন দেশের হয়ে। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৭৮ জন ফুটবলার বিশ্বকাপে খেলছেন স্প্যানিশ লা লিগা থেকে। তবে খেলোয়াড় সংখ্যায় পিছিয়ে থাকলেও গোল করায় লা লিগার খেলোয়াড়েরাই এগিয়ে। লা লিগার খেলোয়াড়েরা মোট ৩১টি গোল করেছে। ইংলিশ লিগের খেলোয়াড়েরা গোল করেছে ৩০টি।
এখন প্রশ্ন হলো, রিয়াল-বার্সা এবং লা লিগা ও ইংলিশ লিগের এই জমজমাট দ্বৈরথ বিশ্বকাপের নকআউটপর্বেও অব্যাবহ থাকবে তো! পরিবর্তন

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ