প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

‘সরকার নিজেই সংবিধান ও আইনের শাসনকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখায়’

রবিন আকরাম : সারাদেশে মাদকবিরোধী অভিযানের নামে ক্রসফায়ার ঘটনায় আসকের সাবেক ভারপ্রাপ্ত নির্বাহী পরিচালক ও মানবাধিকারকর্মী নূর খান লিটন বলেন, যখন সরকারের মধ্যে একনায়কতন্ত্র বা ফ্যাসিজম বাসা বাঁধে, তখনই সরকার ক্রসফায়ারের মতো কর্মকাণ্ডে জড়ায়। সরকার নিজেই তখন সংবিধান, আইনের শাসনকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখায়।

তিনি বলেন, সরকারে যে দলই থাকুক না কেন, সব সময় ক্রসফায়ারের নামে ঠান্ডা মাথায় মানুষদের হত্যা করা হচ্ছে। এমন ধারণা সাধারণ মানুষ পোষণ করেন। কথিত বন্দুকযুদ্ধ, ক্রসফায়ার বা এনকাউন্টারের অধিকাংশ ক্ষেত্রেই হত্যা করে ক্রসফায়ারের গল্পটি শোনানো হয়। ক্রসফায়ার হলে তার মাঝে পড়ে আরও লোকের হতাহত হওয়ার কথা ছিল। শুধু আটক ব্যক্তিই কেন নিহত হন? যখন সরকারের মধ্যে একনায়কতন্ত্র বা ফ্যাসিজম বাসা বাঁধে, তখনই সরকার এ ধরনের কর্মকা-ে জড়ায়। সরকার নিজেই তখন সংবিধান, আইনের শাসনকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখায়।

এ বিষয়ে র‌্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার মুফতি মাহমুদ খান দাবি করেন, সাম্প্রতিক সময়ে র‌্যাবের হেফাজতে যাওয়ার পর কোনো আসামির ক্রসফায়ারে নিহত হওয়ার ঘটনা ঘটেনি। এ সময় উদাহরণ টেনে র‌্যাবের এই মুখপাত্র বলেন, ময়মনসিংহের ত্রিশালে প্রিজনভ্যানে হামলা চালিয়ে দুর্ধর্ষ জঙ্গিদের ছিনিয়ে নেয় তার সহযোগীরা। ওই প্রেক্ষাপটে আইন প্রয়োগ করার প্রয়োজন হলে করণীয় কী?

চলমান মাদকবিরোধী অভিযানে গত ২৯ মে সাতক্ষীরার কলারোয়ায় আনিসুর রহমান (৪০) নামে এক ব্যক্তির গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। পুলিশের দাবি, তিনি মাদককারবারি ছিলেন। তবে নিহতের স্ত্রী নাজমা বেগম দাবি করেন, তার স্বামীকে আগের দিন বাড়ি থেকে চোখ বেঁধে তুলে নিয়ে যায় আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সাদা পোশাকধারী সদস্যরা।

২০১৬ সালের ১৮ জুন বুলেটপ্রুফ জ্যাকেট ও হেলমেট পরিয়ে ফয়জুল্লাহ ফাহিম নামে এক যুবককে মাদারীপুর আদালতে হাজির করা হয়। আদালত তার ১০ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করার ১৫ ঘণ্টা পর তাকে নিয়ে অস্ত্র উদ্ধার অভিযানে নামে পুলিশ। পরে ক্রসফায়ারে নিহত হন ফাহিম। ২০১৫ সালের ২৩ জুন গাজীপুরে র‌্যাবের সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে নিহত হন ডাকাত সরদার মামুন আহমেদ। কিন্তু মামুনের পরিবার অভিযোগ করে, তাকে আগেই তুলে নেওয়া হয় সাদা পোশাকে। আমাদেরসময়

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত