প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

রুশ ধনকুবেরের থেকে কোটি ডলার ঋণ নিয়েছিলেন ট্রাম্পের সহযোগী

ডেস্ক রিপোর্ট : মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সাবেক প্রচার ব্যবস্থাপক পল ম্যানাফোর্টের সঙ্গে ক্রেমলিনঘনিষ্ঠ এক রুশ ধনকুবের যোগাযোগ ধারণার চেয়েও বেশি ভাল ছিল বলে এক তল্লাশি পরোয়ানার আবেদনে নিশ্চিত হওয়া গেছে।

ম্যানাফোর্টের ভার্জিনিয়া অ্যাপার্টমেন্টে তল্লাশি চালাতে মার্কিন কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা এফবিআইয়ের এক এজেন্ট গত বছর জুলাইয়ে ওই আবেদন করেছিলেন।

আদালতে আবেদনের সঙ্গে দেওয়া এক হলফনামায় রুশ ধনকুবেরের কাছ থেকে ম্যানাফোর্টের এক কোটি ডলার ঋণ নেওয়ার বিষয়টি উল্লেখ ছিল বলে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

তল্লাশি পরোয়ানার আবেদন জানিয়ে গত বছর পেশ করা ওই নথি শুক্রবার অবমুক্ত করা হয়।

আবেদনের সঙ্গে দেওয়া হলফনামায় এফবিআই এজেন্ট বলেন, ম্যানাফোর্ট ও তার স্ত্রী পরিচালিত একটি কোম্পানির আয়কর রিটার্ন পর্যালোচনায় রুশ ধনকুবের ওলেগ দেরিপাস্কার কাছ থেকে এক কোটি ডলার ঋণ নেওয়ার বিষয়টি জানা গেছে।

ট্রাম্পের সাবেক প্রচার ব্যবস্থাপকের ভার্জিনিয়া অ্যাপার্টমেন্টে তল্লাশি চালানোর আবেদনটি আদালত মঞ্জুর করেছিল, যা ২০১৬ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রচারে সম্ভাব্য রুশ হস্তক্ষেপ নিয়ে তদন্ত চালানো মুলারের হাতে ম্যানাফোর্টকে অভিযুক্ত করতে গুরুত্বপূর্ণ কিছু প্রমাণও তুলে দিয়েছিল।

তদন্তের অংশ হিসেবেই স্পেশাল কাউন্সেল মুলার রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের ঘনিষ্ঠ হিসেবে পরিচিত ধাতু ব্যবসায়ী দেরিপাস্কার সঙ্গে ম্যানাফোর্টের লেনদেনের বিষয়টি খতিয়ে দেখছেন।

চলতি বছরের এপ্রিলে রাশিয়ার বিভিন্ন ব্যক্তির ওপর যুক্তরাষ্ট্র যে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে সেই তালিকায় দেরিপাস্কার নাম আছে বলেও জানিয়েছে রয়টার্স।

মুলারের তদন্তে ম্যানাফোর্ট ও দেরিপাস্কার মধ্যে মাঝে মাঝে মধ্যস্থতাকারীর ভূমিকায় অবতীর্ণ হওয়া কনস্টানটিন কিলিমনিককেও অভিযুক্ত করা হয়েছে।

কিলিমনিকের সঙ্গে রাশিয়ার গোয়েন্দা সংস্থার ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক আছে বলে আদালতে দেওয়া অভিযোগপত্রে বলেছেন মুলারের তদন্ত দলের দলের কর্মকর্তারা। কিলিমনিক শুরু থেকেই এ অভিযোগ অস্বীকার করে আসছেন।

২০০৫-০৬ সালে ইউক্রেইনে পরামর্শদাতা হিসেবে কাজ শুরুর প্রথম দিকেও দেরিপাস্কা ম্যানাফোর্টকে সহায়তা করেছিলেন বলে বুধবার উন্মোচিত হলফনামায় দেখা গেছে। যে সূত্রের বরাত দিয়ে ওই অভিযোগ করা হয়েছে, হলফানামায় তা সম্পাদিত অবস্থায় দেখে ম্যানাফোর্টের কোনো সহযোগীই তার বিরুদ্ধে চলমান তদন্তে সহযোগিতা করছে বলে অনুমান রয়টার্সের।

রাশিয়া বিষয়ক তদন্তের সূত্র ধরে ম্যানাফোর্টকে অভিযুক্ত করার এখতিয়ার স্পেশাল কাউন্সেলের নেই, ট্রাম্পের সাবেক প্রচার ব্যবস্থাপকের এমন একটি আবেদনও মঙ্গলবার খারিজ করে দিয়েছেন ভার্জিনিয়ার এক বিচারক।

২০১৬ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রচারে কিছু সময় রিপাবলিকান শিবিরের ব্যবস্থাপকের দায়িত্ব পালন করা ম্যানাফোর্টের বিরুদ্ধে ওয়াশিংটন ও ভার্জিনিয়ার আদালতে মুদ্রা পাচার, ব্যাংক ও কর জালিয়াতি এবং ইউক্রেইনের রুশপন্থি সরকারের পরামর্শদাতা হিসেবে কাজ করার সময় ‘বিদেশি এজেন্ট’ হিসেবে নিবন্ধন না করার অভিযোগ আনা হয়েছে।

জুলাইয়ে ভার্জিনিয়ার, সেপ্টেম্বরে ওয়াশিংটনের আদালতে এসব অভিযোগের বিচার শুরুর কথা।

সবগুলো অভিযোগ অস্বীকার করে ম্যানাফোর্ট নিজেকে নির্দোষ দাবি করেছেন বলেও জানিয়েছে রয়টার্স।

নিউ ইয়র্কের ট্রাম্প টাওয়ারে ২০১৬-র ৯ জুন ডোনাল্ড ট্রাম্প জুনিয়র ও রুশ আইনজীবীর মধ্যে অনুষ্ঠিত বৈঠকেও ম্যানাফোর্ট উপস্থিত ছিলেন। সেখানে তার ভূমিকা কী ছিল, মুলার তাও খতিয়ে দেখছেন বলে গত বছর আদালতে করা তল্লাশি পরোয়ানার আবেদনে নিশ্চিত হওয়া গেছে।

ডেমোক্রেট প্রেসিডেন্ট প্রার্থী হিলারি ক্লিনটন সম্পর্কে ‘বিধ্বংসী তথ্য’ দেওয়ার কথা বলে ট্রাম্পপুত্রের সঙ্গে ওই বৈঠকে বসেছিলেন রুশ আইনজীবী নাতালিয়া ভেসেলিনৎস্কায়া। গত বছর এ নিয়ে মার্কিন গণমাধ্যমগুলোতে বেশ কয়েকটি প্রতিবেদনও প্রকাশিত হয়।

ট্রাম্প টাওয়ারে অনুষ্ঠিত বৈঠকে উপস্থিতদের পাশাপাশি রুশ ধনকুবের আরাস আগালারভ ও তার ছেলে এমিনের সম্পর্কেও এফবিআই তথ্য চেয়েছে বলে ম্যানাফোর্টের অ্যাপার্টমেন্ট তল্লাশিতে চাওয়া পরোয়ানার আবেদনে জানা গেছে।

পুতিনঘনিষ্ঠ ধনকুবের আরাসকে মস্কোতে অনুষ্ঠিত ২০১৩ সালের মিস ইউনিভার্স প্রতিযোগিতার মঞ্চে ট্রাম্পের সঙ্গে দেখা গিয়েছিল। তার ছেলে এমিন গায়ক হিসেবে তুমুল জনপ্রিয়।

সূত্র : বিডিনিউজ

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত