প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

adv 468x65

সাসটেইনিবিলিটি কম্প্যাক্টের সভায় বাণিজ্যমন্ত্রী
‘কারখানা কমবান্ধব হয়েছে, তৈরি পোশাকের উপযুক্ত মূল্য দিন’

স্বপ্না চক্রবর্তী : বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ বলেছেন, আমাদের পোশাক কারখানা কর্মবান্ধব হয়েছে, তৈরি পোশাকের উপযুক্ত মূল্য দিন। তিনি বলেন, ইউরোপিয়ন ইউনিয়ন, কানাডা ও যুক্তরাষ্ট্র বাংলাদেশের গুরুত্বপূর্ণ ব্যবসায়িক অংশীদার। বিশেষ করে ইউরোপিয়ন ইউনিয়ন এভ্রিথিংস বাট আমস (ইবিএ) এর আওতায় বাংলাদেশকে জিএসপি সুবিধা প্রদান করে যাচ্ছে। এতে দেশ অর্থনৈতিক ভাবে বেশ উপকৃত হচ্ছে। এজন্য বাংলাদেশ তাদের প্রতি কৃতজ্ঞ। এ বাণিজ্য সুবিধার ফলে বাংলাদেশের অর্থনীতি এগিয়ে যাচ্ছে, তৈরি পোশাক খাতের উন্নতি হচ্ছে, এতে দেশের শ্রমিকরা উপকৃত হচ্ছে। আশা করছি আগামীতে এ সোমবার বেলজিয়ামের রাজধানী ব্রাসেলসে সাসটেইনিবিলিটি কম্প্যাক্টের ৪র্থ পর্যালোচনা সভার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তৃতা প্রদানের সময় তিনি এসব কথা বলেন মন্ত্রী।

এসময় তিনি বলেন, বাংলাদেশের তৈরি পোশাক কারখানাগুলো উন্নত করে গড়ে তোলা হয়েছে। নিশ্চিত করা হয়েছে বিল্ডিং ও ফায়ার সেপটি। উন্নত ও কর্মবান্ধব পরিবেশ নিশ্চিত করা হয়েছে। এতে করে শিল্প মালিকগণ বিপুল অর্থ বিনিয়োগ করেছে কিন্তু তৈরি পোশাকের মুল্য বৃদ্ধি করা হচ্ছে না। দেশের তৈরি পোশাকের মূল্য বৃদ্ধি করা একান্ত প্রয়োজন। সরকার দেশের শ্রম আইন সংশোধন করেছে।

এসময় তোফায়েল আহমেদ আরো বলেন, শ্রমিকরা এখন যে কোন সময়ের তুলনার অধিক শ্রম অধিকার ভোগ করছে। অপ্রত্যাশিত রানা প্লাজা দুর্ঘটনার পর বাংলাদেশে আর কোন দুর্ঘটনা ঘটেনি। শ্রমিক ও মালিকরা শান্তিপূূর্ণ পরিবেশে উৎপাদন বৃদ্ধির লক্ষ্যে কাজ করছে। ক্রেতারা বাংলাদেশ থেকে আরো বেশি তৈরি পোশাক আমদানি করবে বলে বাংলাদেশ আশা করে বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বাংলাদেশে নিযুক্ত ইউরোপিয়ন ইউনিয়নের রাষ্ট্রদূত, বাংলাদেশে নিযুক্ত অষ্ট্রেলিয়ার রাষ্ট্রদূত, বাংলাদেশে নিযুক্ত কানাডার রাষ্ট্রদূত, আইএলও প্রতিনিধিরা বক্তব্য রখেন। তারা বাংলাদেশের সামগ্রিক উন্নয়নের প্রশংসা করেন।

এসময় বাংলাদেশ প্রতিনিধি দলের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সদস্য শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী মো. মুজিবুল হক চুন্নু, বাণিজ্যসচিব শুভাশীষ বসু, শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সচিব আফরোজা খান, এফবিসিসিআই-এর প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ শফিউল ইসলাম, বিজিএমই-এর প্রেসিডেন্ট মো. সিদ্দিকুর রহমান, বাংলাদেশ এক্সপোর্ট প্রসেসিং জোনের নির্বাহী পরিচালক মেজর জেনারেল মো. হাবিবুর রহমান খান, বিকেএমই-এর প্রতিনিধি, বাংলাদেশ এ্যামপ্লায়ার্স ফেডারেশনের প্রতিনিধিসহ সংশ্লিষ্ট সিনিয়র কর্মকর্তারা। এর আগে বাণিজ্যমন্ত্রী ইউরোপিয়ন ইউনিয়নের ট্রেড কমিশনার মিজ সিসিলিয়ার সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক বৈঠক করেন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত