প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

adv 468x65

২০ হাজার ডলারে নিলামে উঠছে মেয়ের কাছে লেখা রিগ্যানের আবেগঘন একটি চিঠি

ইমরুল শাহেদ : কন্যার কাছে নিজ হাতে লিখে পাঠানো যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক প্রেসিডেন্ট রোনাল্ড রিগ্যানের একটি চিঠি ২০ হাজার ডলার পর্যন্ত নিলামে উঠতে পারে। চিঠিটিতে তিনি একটি গানের লাইন ব্যবহার করেছেন। লাইনটি হলো ‘দি ডেজ ডুইন্ডল ডাউন টু এ প্রেশাস ফিউ’। এই লাইনটির আলোকেই তিনি তার পরিবারের ইতিহাস, নিজের নৈতিকতা এবং আবেগ তুলে ধরেছেন।
বছরের পর বছর পিতার রক্ষণশীল রাজনীতি এবং পিতার বিরুদ্ধে জনগণের বিরোধিতার মুখে রোনাল্ড ও ন্যান্সি রিগ্যান দম্পতির বড় সন্তান পত্তি ডেবিস পরিবার থেকে দূরে সরে যান। পত্তির লেখা আত্মজীবনীমূলক উপন্যাসগুলোতে হালকাভাবে সেই সব পারিবারিক দ্বন্দ্বের কিছু কিছু উপজীব্য তুলে আনা হয়েছে।
এক পাতার দুই পৃষ্ঠায় লেখা এই চিঠির শেষে রিগ্যান নিজেই স্বাক্ষর করেছেন এই লিখে ‘লাভ, ড্যাড’ এবং চিঠিটির তারিখ হলো ১৯৮৯ সালের ২৪ ডিসেম্বর।
রিগ্যান লিখেছেন, ‘আগামী ৬ ফেব্রুয়ারি আমার বয়স ৮০ বছরে পড়বে। তোমার মা এবং আমি জানি না আমরা কেন বিচ্ছিন্ন এবং আমাদের প্রথম সন্তান কেন আমাদের কাছ থেকে দূরে। তুমি বড় হয়েছ এবং বাড়ি ছেড়েছ ঘটনাটাতো এমন নয়।’
তিনি লিখেছেন, ‘স্মৃতির মতো আমার চোখে ভাসছে, তোমাকে স্কুলে ছেড়ে তোমার মা কান্না বিজড়িত হয়ে ঘরে ফিরে আসছেন। সে বুঝতে পারেনি তোমার নীরবতার কারণ। তুমি তাকে গুডবাইও বলনি।’
তিনি লিখেছেন, ‘এটা কি তোমার ভাইয়ের জন্ম হওয়ার কারণেই? আমার মনে পড়ে আমার একটি ভালোবাসার মেয়ের কথা, যে জানালার ভিতর দিয়ে হলেও হাত না নেড়ে আমাদের কাছ থেকে বিদায় নিতো না। আমাদের কাছে এমন কিছু স্ন্যাপশট আছে যাতে ছোট মেয়েরটির আচরণের পার্থক্য ধরা পড়ে।’
তিনি চিঠিতে লিখেছেন, ‘আমাদের নিজের কাছেই আমাদের জিজ্ঞাসা আমরা এমন কি ভুল করেছি? এক সময় আমাদের পরিবারটি ভালোবাসায় পরিপূর্ণ ছিল। যাহোক আমি আগেই বলেছি, তোমাকে বিব্রত করব না আমি। কিন্তু আমার জানতে খুব ইচ্ছে করছে, আমাদের পরিবার বিচ্ছিন্ন কেন? আমার কোলে বসে থাকা ছোট মেয়েটির কথা আমার মনে পড়ে, যে তাকে বিয়ে করার কথা বলত আমাকে।’
রিগ্যান লিখেছেন, ‘তার মা পেছন থেকে আমাকে ইয়েস বলতে ইঙ্গিত করত। আমিও তাই করতাম এবং বুঝিয়ে বলতাম বিয়ে করতে হলে তাকে আরো বড় হতে হবে।’
চিঠির খামটির গায়ে ঠিকানাও লেখা রিগ্যানের হাতেই।
যুক্তরাষ্ট্রের আরআর অকশন বলেছে, এটি ছিল সমঝোতার জন্য কন্যার কাছে পাঠানো পিতার চলমান একটি চিঠি। এই চিঠিটি হলো আরআর অকশনের সংগ্রহে থাকা ১০০ বিরল চিঠির একটি। টাইমস অব ইন্ডিয়া

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত