প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

পদ্মা সেতুর ৫৫ শতাংশ ভৌত কাজ শেষ
বিমান বন্দর থেকে ইপিজেড পর্যন্ত এক্সপ্রেসওয়ে হচ্ছে

আসাদুজ্জামান সম্রাট : সড়ক ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, পদ্মা সেতু প্রকল্পের ৫৫ শতাংশ ভৌত কাজ ইতোমধ্যে শেষ হয়েছে। তিনি বলেন, পদ্মা সেতু ও ঢাকা সিটিতে মেট্রোরেল এ দুটি বর্তমান সরকারের অগ্রাধিকারপ্রাপ্ত মেগা প্রকল্প।

সোমবার জাতীয় সংসদে মহিলা আসনের উম্ম রাজিয়া কাজলের লিখিত প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী এ তথ্য জানান। তিনি জানান, যানজট নিরসনে ও বৃহত্তর ঢাকার পরিবহন ব্যবস্থাকে সুষ্ঠু, পরিকল্পিত, সমন্বিত ও আধুনিকায়নের জন্য অগ্রাধিকারপ্রাপ্ত মেট্রোরেল প্রকল্পটি ৫টি রুটের মাধ্যমে নগরবাসীর সেবা প্রদান করা হবে। এর মধ্যে ডিপো এলাকার ভূমি উন্নয়ন, পূর্ত কাজ, বিভিন্ন রুটে ভায়াডাক্ট ও স্টেশন নির্মাণ, ইলেকট্রিক্যাল এ- মেকানিক্যাল সিস্টেম, রোলিং স্টক ও ডিপো ইকুপমেন্ট সংগ্রহ ইত্যাদি এ ৬টি প্যাকেজের মধ্যে রয়েছে। এ লক্ষ্যে ২০১৭ সালের আগস্টের ৬ তারিখে জাপানের কোম্পানি কাওসাকি মিটসুবিশী এর সঙ্গে চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। এ প্যাজেরে আওতায় মোট ২৪ সেট ট্রেন, যার প্রতিটিতে ৬টি করে কোচ থাকবে। এ কাজ শুরু হয়েছে এবং ২০২৩ সালের ৬ ডিসেম্বরের মধ্যে শেষ হবে।

বেগম লুৎফা তাহেরের ( মহিলা আসন-৪০) অপর প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, ঢাকার যানজট সমস্যা সমাধানে হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমান বন্দর হতে ইপিজেড পর্যন্ত ২৪ কিলোমিটার দীর্ঘ ঢাকা-আশুলিয়া এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে নির্মান প্রকল্প একনেকে অনুমোদিত হয়েছে। এটি জি টু জি ভিত্তিতে নির্মাণে চীন সরকারের মনোনীত একটি প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে বাণিজ্যিক চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে এবং অর্থনৈতিক বিভাগের মাধ্যমে ঋণ প্রস্তাবটি চীন সরকারের কাছে পাঠানো হয়েছে বলে জানান মন্ত্রী।

এছাড়া রাজধানীর অসহনীয় যানজট নিরসনে গণপরিবহন সুবিধা সম্পন্ন সাবওয়ে বা আন্ডারগ্রাউ- মেট্রো নির্মাণে সম্ভাবতা সমীক্ষা পরিচালনার জন্য পরিকল্প অনুমোদিত এবং সমীক্ষা পরিচালনার জন্য পরামর্শক নিয়োগ চূড়ান্ত পর্যায়ে রয়েছে। এছাড়া যমুনা নদীর তলদেশে ট্যানেল নির্মাণে সরকার নিজস্ব অর্থায়নে সম্ভবতা সমীক্ষা পরিচালনার জন্য প্রকল্প প্রস্তাব পরিকল্পনা কমিশনে প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত