প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

গ্রীক প্রধানমন্ত্রীর টাই বৃত্তান্ত

আসিফুজ্জামান পৃথিল: অবশেষে গলায় টাই ঝুলালেন গ্রীক প্রধানমন্ত্রী অ্যালেক্সিস সিপ্রাস। গ্রিসের ঋণ সমস্যা সমাধানে ইউরোপের ‘ঐতিহাসিক’ সিদ্ধান্ত উপলক্ষে দেয়া ভাষণে একটি মেরুন টাই গলায় ঝুলিয়ে হাজির হন তিনি। ২০১৫ সালে দায়িত্বগ্রহণের পর এই প্রথম গলায় টাই পড়লেন সিপ্রাস। তিনি শপথ করেিেছলেন তার দেশের ঋণ সমস্যার সমাধান না হওয়া পর্যন্ত তিনি টাই পরিধান করবেন না!

গ্রীক টেলিভিশন ইআরটি সিপ্রাস এর এই ভাষণটি সরাসরি সম্প্রচার করে। তিনি এসময় কালো স্যুট, সাদা শার্ট এবং একটি মেরুন টাই পরিধান করেছিলেন। তিনি বলেন, ‘কোন বাজি তখনই সম্মানিত হয় যখন সেটা জিতে নেয়া হয়। আমরা এই বাজি জিতে গেছি।’ অ্যালেক্সিস সিপ্রাস তার ইনফরমাল পোশাকের জন্য শুরু থেকেই আলোচনায় ছিলেন। মজার ব্যাপার তার ইউরোপিয়ান প্রতিপক্ষরা প্রায়ই বিভিন্ন সফরে তাকে টাই উপহার দিয়েছেন। তাদের সকলকেই বিনয়ের সাথে সিপ্রাস জানিয়ে দিয়েছেন তাঁর দেশ ঋণমুক্ত হবার আগে তিনি টাই পড়তে আগ্রহী নন!

বৃহষ্পতিবার লুক্সেমবার্গে ইউরোপের বাকি দেশগুলোর সাথে একটি চুক্তি হয় গ্রীসের। এই চুক্তিতেই বিশাল অংকের ঋণের বোঝা থেকে মুক্তি দেয়া হয় হেলেনিক দেশটিকে। বিশাল অংকের এই ঋণ শোধে আরো ১০ বছরের অতিরিক্ত সময় পাবে গ্রিস। এর জন্য আলাদাভাবে কোন সুদও দিতে হবে না। বর্তমানে জমা হওয়া সুদ পরিশোধে পরে আরো ১০ বছর অতিরিক্ত সময় পাবে দেশটি। আর খরচ মেটাতে সর্বশেষ চালানে ইউরোপিয় দেশগুলো আরো ১৫ বিলিয়ন ইউরো ঋণ দেবে গ্রীসকে।

এই সম্পর্কে উচ্চসিত ভাষায় সিপ্রাস বলেন, ‘এই চুক্তিটি আমাদের প্রতিবেশী অংশীদারদের নৈতিক দায়িত্ব আর গত আট বছরে গ্রীক জনগণের ত্যাগকে প্রতিফলিত করে। এর ফলে ইউরোজোন একতাবদ্ধ থাকবে।’ নিজের ভাষণের এক পর্যায়ে মজা করে নিজের টাইটি খুলে হাতে নেন গ্রীক প্রধানমন্ত্রী। এই টাইটি গত ৮ বছর গ্রিসের জনগণের কষ্টের প্রতিকই বলা যায়। এই সময়ে দেশটিকে কঠিন অর্থনৈতিক শর্তপূরণের মধ্যে দিয়ে যেতে হয়েছে। কৃচ্ছতার শিকার হয়েছে পুরো দেশ। বেকারত্ব শিকার করে নিতে হয়েছে লাখ লাখ মানুষকে।- শিনহুয়া

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত