প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

adv 468x65

যুক্তরাষ্ট্রের সমাজ বৈষম্যপূর্ণ, ট্রাম্পের নীতি এই প্রক্রিয়া ত্বরান্বিত করছে: জাতিসংঘ

নূর মাজিদ : চরম দারিদ্র এবং মানবাধিকার বিষয়ক জাতিসংঘের বিশেষ দূত ফিলিপ অ্যাস্টন মার্কিন সমাজকে বৈষম্যপূর্ণ বলেছেন। বৃহস্পতিবার জেনেভায় আয়োজিত জাতিসংঘের মানবাধিকার সংস্থার কাউন্সিল মিটিং এর ফাঁকে সাংবাদিকদের এমন কথা বলেন।এসময় তিনি এই পরিস্থিতি ক্রমান্বয়ে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের নীতির কারণেই অবনতি হচ্ছে বলে মন্তব্য করেন।

নিজ বক্তব্যে অ্যাস্টন বলেন, “যুক্তরাষ্ট্র পৃথিবীর অন্যতম প্রধান বিত্তবান রাষ্ট্র, অথচ সেখানে চরম ৪ কোটি মানুষ দারিদ্রের মাঝে বসবাস করে। এদের মধ্যে অন্তত ১ কোটি ৮০ লক্ষ মানুশগ চরম দারিদ্রের মাঝে বসবাস করছেন। এর মানে হচ্ছে যে দেশটির জনসংখ্যার আট ভাগের একভাগ দারিদ্র-আনাহার এবং বৈষম্যের শিকার।”

এসময় তিনি আরো জানান, শুক্রবার যুক্তরাষ্ট্রের মানবাধিকার পরিস্থিতির এই সমস্ত বিবরণ সহকারে তৈরি করা একটি রিপোর্ট তিনি জাতিসংঘের মানবাধিকার সংস্থার কাউন্সিল মিটিং’য়ে জমা দেবেন।

তবে অ্যাস্টন ট্রাম্পের নীতির তীব্র সমালোচনা করে এই বৈষম্য বৃদ্ধির জন্য তার বর্ণবাদি অভিজাততান্ত্রিক আচরণ ও তার গৃহীত আর্থ সামাজিক নীতিকে দায়ী করে বলেন,ট্রাম্পের করনীতি যুক্তরাষ্ট্রের ২০ ভাগ অসচ্ছল জনগোষ্ঠীর জন্য নতুন করে বিপর্যয় ডেকে আনবে। এর ফলে ধনি-দরিদ্রের ফারাক আরো বৃদ্ধি পাবে। যুক্তরাষ্ট্রে এমন একটি সমাজে পরিণত হয়েছে যেখানে রাষ্ট্রীয় নীতি শুধু ধনীদের স্বার্থেই তৈরি করা হয় আর দরিদ্রদের শোষণ করা হয়। ইয়ন

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত