প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

adv 468x65

চীনের কয়লা আমদানি কমবে ২ কোটি টন

নূর মাজিদ: চীন বর্তমান বিশ্বের অন্যতম প্রধান শিল্পোন্নত দেশ। তবে এই জন্য দেশটিকে বিপুল পরিমাণ বিদ্যুৎ উৎপাদন করতে হয়। দীর্ঘদিন ধরেই সেই বিদ্যুতের উৎস ছিলো কয়লা বিদ্যুৎ কেন্দ্র। তবে পরিবেশ দূষণ এবং জলবায়ু পরিবর্তন রোধে চীনের প্রতিশ্রুতির প্রেক্ষাপটে চীন ধীরে ধীরে কয়লা ভিত্তিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র থেকে নিজের নির্ভরতা কমিয়ে নবায়নযোগ্য ও পরিবেশবান্ধব উৎস থেকে বিদ্যুৎ উৎপাদনে বিপুল বিনিয়োগ করছে। চীনের এই সমস্ত নীতির কারণে দীর্ঘদিন ধরেই ধীরে ধীরে দেশটির কয়লা আমদানির মাত্রা কমে আসছিলো। গত বছরের নভেম্বর মাসে চীন ১০ মিলিয়ন বা ১ কোটি টন কম কয়লা আমদানি করে। এবং এই ধারা বরত্মানেও অব্যাহত রয়েছে।

বিশেষ করে চীনা পণ্যে মার্কিন শুল্কারোপের প্রেক্ষিতে চীন যে পাল্টা ব্যবস্থা নিয়েছে তার মধ্যে রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র থেকে আমদানি করা কয়লার উপর শুল্ক আরোপের পরিকল্পনা। এর ফলে দেশটিতে যুক্তরাষ্ট্রের কয়লা রপ্তানি বাণিজ্য হুমকির মুখে পড়বে। শুধুমাত্র ২০১৭ সালেই চীনের ষ্টীল প্রস্তুতকারকেরা যুক্তরাষ্ট্র থেকে ষ্টীল তৈরিতে ব্যবহারের জন্য ২.৮ মিলিয়ন টন কোক কয়লা আমদানি করেছিলো।

তবে এখন থেকে মার্কিন কয়লা আমদানির ওপর চীন বাড়তি ৩ শতাংশ শুল্ক আরোপের যে সিদ্ধান্ত নিয়েছে তার ফলে চীনা উদ্যোক্তারা স্বাভাবিকভাবেই বিকল্প উৎস থেকে কয়লা সংগ্রহের চেষ্টা করবেন। ফলে যুক্তরাষ্ট্রের অপরিশোধিত জ্বালানী তেলের পাশাপাশি চীনে বাৎসরিক ২ কোটি টন কয়লা রপ্তানি বাণিজ্যও বন্ধ হবার পথে। রয়টার্স/ দ্য ন্যাশনাল

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত