প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

অনিয়মের অভিযোগে ঝুঁকিতে যুক্তরাষ্ট্র-ভারত অ্যাপাচি হেলিকপ্টার চুক্তি

নূর মাজিদ : গত ১৩ই জুন ভারতের কাছে অ্যাপাচি অ্যাটাক হেলিকপ্টারের সর্বাধুনিক সংস্করণ এএইচ-৬৪ই বা ইকো ভার্সন বিক্রয়ের অনুমোদন দেয় মার্কিন প্রশাসন। এই চুক্তি অনুসারে ভারতীয় সেনাবাহিনীর জন্য সরবরাহকৃত অ্যাপাচি হেলিকপ্টারের মূল ফিউজিলাজ ভারতেই তৈরি করা হবে। এই চুক্তির আর্থিক মূল্য প্রায় ৯৩০ মিলিয়ন বা ৯৩ কোটি মার্কিন ডলার।

কিন্তু, সাম্প্রতিক সময় এই প্রতিরক্ষা চুক্তিটির সম্পাদনের প্রক্রিয়া নিয়ে অনিয়মের খবর প্রকাশিত হয়েছে ভারতীয় গণমাধ্যমে। ফলে চুক্তিটির ভবিষ্যৎ নিয়ে সঙ্কট দেখা দিয়েছে। যদিও, সামরিক অস্ত্র ক্রয়ের ক্ষেত্রে ভারতে এমন অনিয়মের ঘটনা এটাই প্রথম নয়।

ভারতীয় গণমাধ্যম জানায়, ছয়টি অত্যাধুনিক অ্যাপাচি হেলিকপ্টারের জন্য ৯৩০মিলিয়ন ডলারের চুক্তি আসলেই অনেক বেশী। বিশেষত এর ফলে ভারত ৬টি অ্যাপাচি হেলিকপ্টারের প্রতিটির জন্য ১৫০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার খরচ করতে যাচ্ছে। একই সময় মার্কিন বিমান বাহিনীর সর্বাধুনিক পঞ্চম প্রজন্মের স্টিলথ ফাইটার জেট এফ-৩৫, অ্যাপাচির চাইতেও কম মূল্যে কিনেছে ইসরাইল।

তবে ভারতীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, অত্যাধুনিক নেভিগেশন, রাডার, কম্পোজিট ম্যাটারিয়াল প্রভৃতির মেধাস্বত্ব সহকারে ভারতকে এই অতিরিক্ত মূল্য পরিশোধ করতে হচ্ছে। বিশেষত এর সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রে ভারতীয় পাইলটদের প্রশিক্ষণের বিষয়টিও যুক্ত আছে। এছাড়াও চুক্তির শর্ত অনুসারে বিপুল পরিমাণ ট্রেনিং অ্যামুনিশনের খরচও এতে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে।

তবে প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের এমন ব্যাখ্যায় সন্তুষ্ট নন ভারতের গণমাধ্যম। আসন্ন নির্বাচনের আগে এই চুক্তিটির প্রকৃত আর্থিক বিবরণ জনসম্মুখে প্রকাশের দাবী জানিয়েছেন তারা। অন্যথায় নির্বাচনে রাজনৈতিক ইস্যুতে রূপান্তরিত হলে পুরো চুক্তিটির ভবিষ্যৎ অনিশ্চিত হয়ে পড়বে বলেই তারা জানিয়েছে। বিজনেস স্ট্যান্ডার্ড

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত