প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

adv 468x65

ঔষধের ভুল প্রয়োগে ব্রিটিশ হাসপাতালে ৪৫৬ জনের মৃত্যু

লিহান লিমা: ব্রিটেনের গসপোর্ট মেমোরিয়াল হাসপাতালে শক্তিশালী ব্যথানিরোধক ঔষধের ভুল প্রয়োগে ৪৫৬ জন মৃত্যুবরণ করেছে। বুধবার একটি স্বাধীন তদন্ত কমিটির প্রতিবেদনে উঠে আসে, ওই হাসপাতালের শরীরবিদ বয়স্ক রোগিদের শক্তিশালী ব্যথানিরোধক ঔষধ সেবনের পরামর্শ দিতেন, যা শতশত রোগির মৃত্যু ডেকে এনেছে।

প্রতিবেদনে হাসপাতালের ঔষধ প্রয়োগের নীতিকে দায়ী করা হয়। এতে দেখা যায় ১৯৮৯ থেকে ২০০০ সাল পর্যন্ত দীর্ঘ ১১ বছর ডক্টর জেন বারটন ও তার সহকারী প্রতিদিন ওয়ার্ড পরিদর্শন করতেন। এই সময়ে মোট ৪৫৬ জন বার্টনের পরামর্শে ‘ডায়ামরফিন-সিনথেটিকহিরোইন এর মত পেইনকিলার সেবন করে এর প্রভাবে মৃত্যুবরণ করেন। প্রতিবেদনে আরো বলা হয়, ওয়ার্ডে বার্টনের নির্দেশনার পরিচালিত নার্সের পরামর্শে মোট ২০০ রোগির আয়ূ হ্রাস পেয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, হাসপাতাল, স্থানীয় এবং সংশ্লিষ্ট জাতীয় কর্তৃপক্ষ রোগী ও তার স্বজনদের সুরক্ষা দিতে ব্যর্থ হয়েছে। ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে এই ঘটনার জন্য গভীর দুঃখ ও শোক প্রকাশ করেন। ব্রিটেনের স্বাস্থ্যমন্ত্রী জেরেমি হান্ট সরকার এবং জাতীয় স্বাস্থ্য সংস্থার পক্ষ থেকে এই মৃত্যুর জন্য ক্ষমা প্রার্থনা করে বলেন, খুব শীঘ্রই এই অপরাধের দায়ে অভিযোগ গঠন করা হবে।

এর আগে ডাক্তার বার্টনের বিরুদ্ধে ২০১০ সালে ১৯৯৬ থেকে ১৯৯৯ পর্যন্ত ১২জন রোগির যতœ নিতে ব্যর্থতার দায়ে অভিযোগ আনা হলেও তিনি কোন শাস্তি ভোগ করেন নি। তখন বিবিসিকে দেয়া সাক্ষাতকারে বার্টন নিজকে রোগির স্বার্থে নিয়োজিত এক চিকিৎসক হিসেবে দাবি করেন। বুধবারের প্রতিবেদন প্রকাশিত হওয়ার পর থেকে নিহতদের স্বজনরা এই উপযুক্ত বিচার দাবি করছেন। বিবিসি, সিএনএন।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত