প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

মুসলিম ঐক্য গড়ে তোলা অপরিহার্য হয়ে উঠেছে : মাওলানা আবদুল লতিফ নেজামী

রফিক আহমেদ : ইসলামী ঐক্যজোটের চেয়ারম্যান মাওলানা মোঃ আবদুল লতিফ নেজামী বলেছেন, দেশ, জাতি ও জনগণের বিশেষ করে মুসলিম বিশ্বের বিরুদ্ধে অব্যাহত ষড়যন্ত্র মোকাবেলায় রমজানের চেতনায় উজ্জীবিত হয়ে ইস্পাত কঠিন মুসলিম ঐক্য গড়ে তোলা অপরিহার্য হয়ে উঠেছে।

বুধবার ইসলামী ঐক্যজোট, শিবপুর উপজেলা শাখা কর্তৃক ইটাখোলায় আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

পবিত্র রমজানের চেতনায় উজ্জীবিত হয়ে দেশের স্বাধীনতা-সার্বভৌমত্ব অক্ষুন্ন রাখার দীপ্ত শপথ গ্রহণের জন্যে দেশপ্রেমিক সকল রাজনেতিক দল, সংগঠন ও ব্যক্তিত্বের প্রতি আহ্বান জানিয়ে ইসলামী ঐক্যজোটের চেয়ারম্যান বলেন, পবিত্র রমজান মুসলিম বিশ্বের জন্যে খুবই গুরুত্বপূর্ণ। রমজানে বদর যুদ্ধের মাধ্যমে ইসলাম প্রতিষ্ঠিত হয়। আর পলাশী যুদ্ধের মাধ্যমে উপমহাদেশে মুসলিম শাসনের অবসান ঘটে। সহসভাপতি মাওলানা আবদুর রহিমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- মাওলানা মুুুজিবুর রহমান, এইচ এম হারিছুল হক, হাফেজ আবদুল কাইয়ূম, মাওলানা যোবায়ের হোসেন, আলহাজ্ব ওবায়দুল হক, মাওলানা নুরুজ্জামান, রফিকুল ইসলাম, মাওলানা নোমান, মাওলানা আবদুর রহমান হাশিম, মাওলানা সৈয়দ মাহমুদ হোসেন ও নুরুজ্জামান প্রমূখ।

মাওলানা লতিফ নেজামী বলেন যে, দ্বিতীয় হিজরীর ১৭ রমজান সংঘটিত বদর যুদ্ধের মাধ্যমে ইসলাম প্রতিষ্ঠিত হয়। এজন্যে রমজানকে ইসলাম প্রতিষ্ঠার মাস বলা হয়। সাম্রাজ্যবাদী, আধিপত্যবাদী ও সম্প্রসারণবাদী হায়নাদের হত্যা, লুন্ঠন ও অত্যাচার-নির্যাতনে মধ্যপ্রাচ্যসহ মুসলিম বিশ্বের অনেক দেশ এখন প্রেতরাজ্য। তিনি বলেন, নারকীয় তান্ডব চালিয়ে, রাজনৈতিক ধুম্রজাল সৃষ্টি করে ও রাষ্ট্রীয় সন্ত্রাসকে অঘোষিত যুদ্ধে রূপান্তরিত করে এসব শক্তি মুসলিম বিশ্বে তাদের ষড়যন্ত্র বাস্তবায়ন করার আস্ফালন চালাচ্ছে। তিনি বলেন, বদর যুদ্ধের চেতনাকে শাণিত করে কাশ্মীর, ফিলিস্তিন, চেচনিয়া, মিন্দানাও, পাত্তান, আরাকান, জিনজিয়াং, ইঙ্গুসতিয়ার স্বাধীনতাকামী জনগণের সহায়তায় এগিয়ে আসার জন্যে মুসলিম বিশ্বের প্রতি আহ্বান জানান।

তিনি বলেন, এক শ্রেণীর কুচক্রিদের ষড়যন্ত্রের ফলে ১৭৫৭ সালের ২৩ জুন পলাশী যুদ্ধে পরাজয়ের কারণে বাংলা-বিহার-উড়িষ্যার স্বাধীনতা সূর্য্য অস্তমিত হয়। ফলে উপমহাদেশে ইংরেজদের শাসন ব্যবস্থা প্রতিষ্ঠার পথ সুগম হয়। এবং মুসলিম সাম্রাজ্যের পতন ঘটে। দীর্ঘ পথ পরিক্রমার পর অর্জিত স্বাধীনতা-সার্বভৌত্বকে নস্যাৎ করার লক্ষ্যে প্রতিক্রিয়াশীল চক্র এশিয়া পুনরুজ্জীবন ও উপমহাদেশ পুনরুজ্জীবনের নামে প্রাসাদ ষড়যন্ত্রে লিপ্ত।

তিনি বলেন, দেশের স্বাধীনতা-সার্বভৌমত্বের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রের অংশ হিসেবে এদেশের জনগণের পৃথক অস্তিত্ব, স্বাধীন মর্যাদা, ধর্মীয় সংস্কৃতি ও ইসলাম ধর্মভিত্তিক জাতিসত্ত্বা নস্যাৎ করার অপপ্রয়াস চালানো হচ্ছে। অথচ স্বাধীন বাংলাদেশের বাংলাদেশি জাতিসত্ত্বার মূলে রয়েছে ইসলাম ধর্ম। বাংলাদেশিত্ব ও ধর্মই আমাদের জাতিসত্ত্বার অস্তিত্বের শর্ত। ইসলাম ধর্ম ছাড়া স্বাধীন জাতিসত্ত্বার অস্তিত্ব রক্ষা করা সম্ভব নয়।

তিনি আরও বলেন, ইসলাম ধর্ম আমাদের স্বাধীনতা-সার্বভৌমত্বের গ্যারান্টি। আমাদের স্বাধীন রাষ্ট্রীয় ভূখন্ডভিত্তিক বাংলাদেশি চেতনা এবং জীবনভিত্তিক ধর্মীয় দৃষ্টিভঙ্গীর ৯০ ভাগ মাণবমন্ডলির অস্তিত্বের ভিত্তি তৈরি করেছে ইসলাম ধর্ম। তাই ইসলামের আদর্শ ধারণ, চর্চা ও অনুশীলন এবং ইসলামভিত্তিক শিক্ষাই এদেশের স্বাধীনতা-সার্বভৌমত্ব অক্ষুন্ন রাখার একমাত্র উপায়।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত