প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

দীর্ঘ ৪৪বছর যে বন্দরে একটি বিমানও ওড়েনি

আব্দুর রাজ্জাক: সাইপ্রাসের নিকোশিয়া আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর এখন একটি পরিত্যাক্ত ময়দান। দীর্ঘ ৪৪ বছর এখানে একটি বিমানকেও পাখা মেলতে দেখা যায়নি। দ্বীপ রাষ্ট্র সাইপ্রাসের রাজধানী নিকোশিয়া আকাশ পথে যাত্রা বিরতি ও পর্যটকদের জন্য অন্যতম প্রসিদ্ধ। লেবানন ও তুরস্কের মধ্যবর্তী ভূ-মধ্যসাগরের মাঝে অবস্থিত দেশটি মূলত একটি পর্যটন এলাকা। কিন্তু জাতিবিভেদের কারণে রাষ্ট্রটি বিভাজিত হয়ে যাওয়ায় বিমানবন্দরটি মধ্যবর্তী এলাকায় পড়ে যাওয়া। তাই ১৯৭৪সাল থেকে কেউ এটি ব্যবহার করতে পারছে না।

সাইপ্রাস বৃটিশ উপনিবেশ থেকে ১৯৬০সালে স্বাধীন হওয়ার পর সেখানে শুরু হতে থাকে গ্রিস ও তুরস্ক পন্থী সাইপ্রিয়টদের দ্বন্দ্ব। তুরস্ক পন্থীদের সংখ্যা কম হওয়ায় ১৯৭৪সালে সাইপ্রাসের নির্বাচিত সরকারকে উৎখাত করার চেষ্টা করেছিল গ্রিস। তাদের হস্তক্ষেপ রুখতে তুরস্ক সেখানে সামরিক অভিযান চালালে বড় একটি অংশ তাদের নিয়ন্ত্রণে চলে আসে। সেই থেকে সাইপ্রাস দুই ভাগে বিভক্ত হয়ে যায়।

উল্লেখ্য, সাইপ্রাসের রাজধানী নিকোশিয়া বরাবর একটি নিরাপদ নিয়ন্ত্রণ রেখা এঁকে দিয়েছে জাতিসংঘ। বাফার জোন নামে নিয়ন্ত্রণ রেখাটি তুরস্ক নিয়ন্ত্রিত উত্তর সাইপ্রিয়টকে গ্রিসের দক্ষিণ সাইপ্রিয়ট থেকে আলাদা করেছে। রাজধানী শহরটি নিয়ন্ত্রণ রেখার মাধ্যমে আলাদা হওয়ায় বিমানবন্দরটিও বিভক্ত হয়েছে। সেই থেকে বন্দরটি কেউ ব্যবহার করতে পারছেনা। সিএনএন

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ