প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

‘আমার জীবন পর্নো নয়’, ৩০ হাজার দ.কোরীয় নারীর বিক্ষোভ

লিহান লিমা: পাবলিক প্লেসে গোপন ক্যামেরা ব্যবহারের প্রতিবাদে এই প্রথমবারের মত দক্ষিণ কোরিয়ার বিক্ষোভ করেছেন ৩০ হাজার নারী। পর্নো ব্যবসায় গোপন ক্যামেরার ফুটেজ ব্যবহারের প্রতিবাদে রাজধানী সিউলে তারা বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন।

এমনকি, বিক্ষোভের সময়ও বেশিরভাগ নারীই কোন রকম হয়রানির আশঙ্কায় মুখোশ পরে ছিলেন। পাবলিক টয়লেট, গণপরিবহন, শপিংমল, ট্রেন, বাস ও অন্যান্য স্থানে গোপন ক্যামেরা ব্যবহারের অভিযোগ তুলে ব্যাপক বিক্ষোভ করে তারা। ‘আমার জীবন পর্নো নয়’-নামক নানা পোস্টার ও ব্যানার নিয়ে একত্রিত হন তারা।

প্রসঙ্গত, দেশটিতে গোপন ক্যামেরা ব্যবহার করে বিশাল পর্নো ব্যবসার বাজার রয়েছে। এই ধরণের ক্যামেরা শনাক্ত করা কঠিন বলে খুব সহজেই এর ফাঁদে পড়েন দেশটির নারীরা। এর আগে, গত ১৯ মে প্রায় ১২ হাজার নারী এর বিরুদ্ধে বিক্ষোভ করেছিলেন।

বিক্ষোভে ফেটে পড়া নারীরা জানান, গোপন ক্যামেরায় ধারণকৃত ফুটেজ ব্যবহার করে সামাজিকভাবে তাদের হয়রানি করা হচ্ছে। আইন-শৃঙ্খলবাহিনীও এর বিরুদ্ধে কোনও কার্যকর পদক্ষেপ নেয়নি। এছাড়া, তদন্তের ক্ষেত্রে পুলিশের বিরুদ্ধে পক্ষপাতমূলক আচরণেও অভিযোগ আনেন তারা।

অন্যদিকে পুলিশের বিবৃতিতে বলা হয় , এই পর্যন্ত গোপন ক্যামেরা ব্যবহারের দায়ে ৫ হাজার ৪৩৭ জনকে আটক করা হয়েছে। এর মধ্যে ১১৯জনকে শাস্তি দেয়া হয়েছে। যদিও ২০১২ সাল থেকে ২০১৭ পর্যন্ত সন্দেহভাজন অপরাধীদের মধ্যে আটকের হার মাত্র ২.৬ ভাগ। আরটি

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ