প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

দ্বৈত ভোটার হওয়ায় ইসির মামলা করার নির্দেশ

সাইদ রিপন : সিলেটের ফেঞ্চুগঞ্জে দ্বৈত ভোটার হওয়ার অভিযোগে একজনের বিরুদ্ধে মামলা করার নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। ঐ নাগরিক নিজ ধর্ম ইসলাম গোপন করে প্রথমে হিন্দু নামে ভোটার হয়েছিলো। সম্প্রতি ইসির সহকারি সচিব মো. মোশাররফ হোসেন স্বাক্ষরিত এ সংক্রান্ত চিঠি সিলেটের ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও রেজিস্ট্রেশন অফিসারের কাছে পাঠানো হয়েছে।

চিঠিতে বলা হয়, ঢাকা মহানগরীর আরামবাগ ভোটার এলাকায় নৃপেন্দ্র কুমার বোস (জাতীয় পরিচয়পত্র নম্বর ২৮৯৫৪৩২৯৮৮৩০২) প্রথমবার নামসহ ব্যক্তিগত তথ্যাদি গোপন, মিথ্যা তথ্য দেয়া ও বিদেশে যাওয়ার উদ্দেশ্যে ধর্ম পরিবর্তন করে এবং পরবর্তীতে সিলেট জেলার ফেঞ্চুগঞ্জ উপলার কচুয়াবহর ভোটারকালে এলাকায় মীর আবুল হাসনাত খায়রুল বাসার (জাতীয় পরিচয়পত্র নম্বর ৯১১৩৫৭১০০০০১২) নিজ নাম, ধর্ম ও প্রথমবার অন্তর্ভুক্তি ঘোষিত ব্যক্তিগত সম্পূর্ণ তথ্য পরিবর্তন করে দ্বিতীয়বার ভোটার তালিকায় উদ্দেশ্য প্রণোদিতভাবে একাধিকবার অন্তর্ভুক্ত করেন। বিষয়টি কমিশনের দৃষ্টিগোচর হওয়ায় এ কাজের জন্য ভোটার তালিকা আইন, ২০০৯ এর ১৮ ধারা অনুযায়ী তার বিরুদ্ধে ফৌজদারি মামলা দায়েরের জন্য নির্দেশনা দিয়েছে কমিশন।

দ্বৈত ভোটার হওয়ায় তার বিরুদ্ধে আইন সংশ্লিষ্ট ধারা অনুযায়ী ফৌজদারি মামলা দায়ের করে মামলার বিবরণাদিসহ কমিশন সচিবালয়কে অবহিত করতে বলা হয় ওই চিঠিতে। দোষী প্রমাণিত হলে এই ব্যক্তি অনধিক ছয় মাস কারাদণ্ড বা অনধিক দুই হাজার টাকা অর্থদণ্ড বা উভয় দণ্ডে  দণ্ডিত হবেন।

ইসি সূত্রে জানা যায়, সস্প্রতি সিলেটে স্থানীয় সরকার নির্বাচনকে কেন্দ্র করে অভিযুক্ত ব্যক্তি দেখেন সেখানকার ভোটার তালিকায় তার নাম নেই। পরে দেখেন তার নাম মৃতদের তালিকায় চলে গেছে। পরে বিষয়টি নিয়ে ইসিতে যোগাযোগ করলে কমিশন তা খতিয়ে দেখে। পরে ফিঙ্গার প্রিন্ট ম্যাচে তার দ্বৈত ভোটার হওয়ার বিষয়টি ধরা পড়ে। বর্তমানে তার দু’টি এনআইডি লক করা আছে বলেও জানান সংশ্লিষ্টরা।

ইসি কর্মকর্তারা জানান, এর আগে উদ্দেশ্য প্রণোদিতভাবে দ্বৈত ভোটার হওয়ায় নোয়াখালীর হাতিয়া উপজেলায় দুইজন, বরিশালের উজিপুর উপজেলায় একজনসহ বেশ কয়েক জনের নামে মামলা করেছে ইসি। তবে নিজ ধর্ম গোপন রেখে অন্য ধর্মের ভোটার হওয়াসহ দ্বৈত ভোটারের ঘটনা এটিই প্রথম ঘটনা।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত