প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

নাটোরে গয়না তৈরির কারখানায় অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতি

কামাল হোসেন: এক দফা দাবি আদায়ে নাটোরে স্বর্ণ শিল্প কারিগরদের অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতির দ্বিতীয় দিন পার হয়েছে। স্বর্ণের গয়না প্রস্তুতের ক্ষেত্রে মজুরি কমানোর প্রতিবাদে এই অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতি পালন নাটোর জেলা স্বর্ণ শিল্প কারিগর ইউনিয়ন।

রবিবার সকাল থেকে দ্বিতীয় দিনের মতো এই কর্মবিরতি কর্মসূচি পালন করছেন। ফলে জেলায় গয়না তৈরির সকল কারখানার কাজ বন্ধ হয়ে আছে।

নাটোর জেলা স্বর্ণ শিল্প কারিগর ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক শাহজাহান শেখ জানান, ২১ ক্যারেট ও ২২ ক্যারেট গয়না তৈরির ক্ষেত্রে প্রতি ভরিতে ২৫০০ টাকা মজুরি নির্ধারণ করেছে মালিক পক্ষ। এর প্রতিবাদে কারিগর সমিতির সিদ্ধান্ত হিসেবে শনিবার থেকে নাটোর জেলা স্বর্ণ শিল্প কারিগর ইউনিয়নের সকল কারিগর অনির্দিষ্টকালের জন্য কাজ বন্ধ ঘোষণা করেছেন।

নাটোর জেলা স্বর্ণ শিল্প কারিগর ইউনিয়নের সভাপতি প্রশান্ত দাস জানান, নাটোরে স্বর্ণ শিল্প কারিগর ইউনিয়নের প্রায় ৪ হাজার কারিগর কাজ করেন। দীর্ঘদিন ধরেই তারা এই পেশার সাথে নিয়োজিত। বর্তমানে বাংলাদেশ জুয়েলার্স সমিতি (বাজুস) কর্তৃক ক্যাডিয়াম ও হলমার্ক ভিত্তিক গয়না প্রস্তুতের পদ্ধতি চালু করতে চায়।

তিনি জানান, সেখানে কারিগরদের সাথে কোনো আলোচনা না করেই মালিক পক্ষ তাদের মতো করে মজুরি নির্ধারণ করে রেখেছেন। যা কারিগরদের শোষণের সামিল। দ্রব্যমূল্যের উর্ধ্বগতিতে পারিশ্রমিক বৃদ্ধি করার বদলে মালিক পক্ষ পারিশ্রমিক কমিয়ে কারিগরদের কাজ করতে বাধ্য করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

তিনি আরো জানান, প্রতি ভরিতে মজুরি প্রতি ভরিতে ৪ হাজার টাকা নির্ধারণ করার দাবি জানাই। এই দাবি পূরণ না হওয়া পর্যন্ত কর্মবিরতি চালিয়ে যাবো।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত