প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

জেট ফুয়েল পরিবহনে ১৬ কি.মি. ভূ-গর্ভস্থ পাইপলাইন স্থাপনের উদ্যোগ

সোহেল রহমান : বিমানে ব্যবহৃত জ্বালানি তেল (জেট এ-১) পরিবহনে ব্যয় হ্রাস, অপচয় ও সিস্টেম লস কমিয়ে আনতে পিতলগঞ্জের কাঞ্চন সেতু থেকে হযরত শাহ্জালাল আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরের কুর্মিটোলা এভিয়েশন ডিপো (কেএডি) পর্যন্ত ভূ-গর্ভস্থ পাইপ লাইন স্থাপনের উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। প্রকল্পের আওতায় পাম্পিং সুবিধাসহ ৮ ইঞ্চি ব্যাস বিশিষ্ট ১৬ কিলোমিটার দীর্ঘ জেট এ-১ পাইপ লাইন নির্মাণ করা হবে। ‘বাংলাদেশ পেট্রোলিয়াম কর্পোরেশন’-এর নিজস্ব অর্থায়নে বাস্তবায়িতব্য এ প্রকল্পটির মোট ব্যয় ধরা হয়েছে ২২৮ কোটি ৪৯ লাখ টাকা।

জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ বিভাগ সূত্রে জানা যায়, প্রকল্পটি বাস্তবায়নে নৌ-বাহিনীর ব্যবসায়িক অঙ্গ-প্রতিষ্ঠান ‘নৌ-কল্যাণ ফাউন্ডেশন ট্রেডিং কোম্পানি লিমিটেড’-কে ইপিসি (ইঞ্জিনিয়ারিং-প্রকিউরমেন্ট অ্যান্ড কনস্ট্রাকশন) ঠিকাদার হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। অতি সম্প্রতি ঠিকাদারের কার্যক্রম মনিটরিং-এর জন্য ৫ কোটি ৮৬ লাখ টাকা ব্যয়ে প্রকল্পের ‘প্রজেক্ট ম্যানেজমেন্ট কনসালটেন্ট’-ও নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। যৌথভাবে এ কাজটি পেয়েছে জার্মানীর ‘দর্সচ হোল্ডিং জিএমবিএইচ’ ও ভারতের ‘দর্সচ কনসাল্ট প্রাইভেট লিমিটেড’। প্রকল্পের প্রাক-সম্ভাব্যতা যাচাই ও ফিড ডকুমেন্ট তৈরিতেও উল্লেখিত প্রতিষ্ঠান দুটি পরামর্শক হিসেবে কাজ করেছে।

উল্লেখ্য, দেশে ব্যবহৃত জ্বালানি তেলের প্রায় ৯০ শতাংশ বিদেশ থেকে আমদানি করা হয়ে থাকে। আমদানিকৃত জেট এ-১ পরিবহনে ব্যয় হ্রাস, অপচয় ও সিস্টেম লস কমিয়ে আনতে পিতলগঞ্জের কাঞ্চন সেতু থেকে হযরত শাহ্জালাল আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরের কুর্মিটোলা এভিয়েশন ডিপো (কেএডি) পর্যন্ত ভূ-গর্ভস্থ পাইপ লাইন স্থাপনের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে বলে জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ বিভাগ জানায়।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ