প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ঐতিহাসিক ঐকমত্যে দুই কোরিয়া

জাহিদ হাসান : সাড়ে ছয় দশকের বৈরিতার অবসান ঘটিয়ে কোরীয় উপদ্বীপে শান্তি ফিরিয়ে আনতে ঐতিহাসিক ঐকমত্যে পৌঁছেছে উত্তর ও দক্ষিণ কোরিয়া। কোরীয় উপদ্বীপকে সম্পূর্ণ পরমাণু নিরস্ত্রীকরণ করা আর শান্তি রক্ষায় উত্তর ও দক্ষিণ কোরিয়া এক ঐতিহাসিক ঘোষণায় স্বাক্ষর করেছে।

দুই দেশের সীমান্তবর্তী গ্রাম পানমুনজমে শুক্রবার এক ঐতিহাসিক বৈঠকের পর কিম ও মুনের এই যৌথ ঘোষণা আসে বলে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমগুলোর খবরে বলা হয়েছে।

উত্তর ও দক্ষিণ কোরিয়ার কোনো শীর্ষ নেতার মধ্যে গত এক দশকের মধ্যে এ ধরনের বৈঠক এটাই প্রথম। এই বৈঠক নিয়ে সারা বিশ্বের গণমাধ্যমের ব্যাপক আগ্রহ দেখা যায়। এরপর উত্তর কোরিয়ার নেতা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে বৈঠকে বসবেন।

১৯৫৩ সালে কোরিয়া যুদ্ধ শেষ হওয়ার পর থেকে যে সামরিক রেখা এই উপদ্বীপকে বিভক্ত করে রেখেছে, উত্তর কোরিয়ার প্রথম নেতা হিসেবে ওই রেখা পেরিয়ে দক্ষিণ কোরিয়ার মাটিতে পা রাখেন কিম জং-উন। সেখানে তাকে স্বাগত জানান দক্ষিণ কোরিয়ার প্রেসিডেন্ট মুন জ্যা-ইন।

এরপর একটি নীল ফুটওভার ব্রিজে বসে খোশগল্পে মেতে ওঠেন তারা। সে সময় তাদের আশেপাশে আর কেউ ছিল না। গাছের ছায়ার নিচে চা পান করতে করতে দু’জনকে বেশ অন্তরঙ্গভাবে আলাপ করতে দেখা যায়। চারপাশে পাখির কলকাকলিতে মুখর হয়ে ওঠে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত