প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

প্রতিশ্রুতির ১ মাস পেরিয়ে গেলেও পানি সরবরাহ করতে পারেনি ঢাকা ওয়াসা

ডেস্ক রিপোর্ট: সাভারের ভাকুর্তার প্রাকৃতিক জলাধার থেকে পানি এনে মিরপুরে সরবরাহের কথা ছিল। প্রতিশ্রুতির ১ মাস পেরিয়ে গেলেও কূপের পানি সরবরাহ করতে পারেনি ঢাকা ওয়াসা। এ আশ্বাসের কারণে, স্থানীয়রা এবার পাম্প বসানোর উদ্যোগ নেননি। চলমান পানি সংকট ও কূপের পানি না পাওয়ায় আসন্ন রমজান মাসে পানি নিয়ে আতঙ্কে রয়েছেন ঢাকা উত্তরের বেশিরভাগ এলাকার মানুষ। ওয়াসার দাবি, পাইপ বসাতে জটিলতার কারণে জুন মাস পর্যন্ত পিছিয়েছে ভূগর্ভস্থ কূপের পানি সরবরাহ।

রাজধানীর অন্যান্য এলাকার মতো মিরপুরের বিভিন্ন জায়গায় পানি সংকট থাকে প্রায়ই। এলাকাবাসীর দাবি, গত কয়েক বছর যাবতই শুষ্ক মৌসুমে পর্যাপ্ত পানি পাওয়া যায় না। হিমালয় থেকে বয়ে আসা পানির ধারায় তৈরি হওয়া কূপ থেকে পানি তোলার প্রকল্পটির কাজ শুরু হয় ২০০৯ সালে। শেষ হওয়ার কথা ছিল চলতি বছরের মার্চে। কিন্তু এপ্রিল মাসেও সম্ভব হয়নি নতুন উৎস থেকে পানি সরবরাহ।

ডিএনসিসি’র ১৪ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর হুমায়ুন রশিদ জনি বলেন, নতুন করে জায়গা নিয়ে আমরা পানি পাম্প বসানোর কথা বলেছিলাম। কিন্তু ওয়াসা বলেছে, নতুন পাম্পের দরকার নেই, ভাকুর্তা থেকে পানি আসবে। কিন্তু সেই সমস্যার কোনো সমাধান আমরা দেখতে পাচ্ছি না।

ওয়াসা জানায়, বাংলাদেশ ও কোরিয়া সরকারের যৌথ অর্থায়নে ৫৭৩ কোটি টাকা ব্যয়ে প্রকল্পটির অবকাঠামো নির্মাণের কাজ প্রায় শেষ পর্যায়ে। তবে ৪২ কিলোমিটারের মধ্যে তুরাগ নদের তলদেশ দিয়ে পাইপ লাইন বসানোর কাজ শেষ হয়নি এখনও।

ঢাকা ওয়াসা’র ব্যবস্থাপনা পরিচালক প্রকৌশলী তাকসিম এ খান বলেন, তুরাগ নদীর তলদেশ দিয়ে টানেল বসিয়ে পানি আনতে হচ্ছে, সেই মাইক্রো টানেলিংয়ে কিছু সময় লাগছে। জুন মাসের ৩০ তারিখ আমাদের কাজ শেষ হয়ে যাচ্ছে। এরফলে আমরা প্রতিদিন ১৫ কোটি লিটার পানি দিতে পারব এবং এতে মিরপুরে যেই সমস্যা হয় সেটা ঠিক হয়ে যাবে।

ঢাকা ওয়াসার দাবি, চাহিদার তুলনায় বেশি পানি উৎপাদিত হলেও পাইপ লাইনের কারণে কিছু এলাকায় বিভিন্ন সময় সমস্যা থাকে। ভবিষ্যতে, নতুন পাইপলাইন স্থাপন ও নদী থেকে পানি সরবরাহ শুরু হলে সংকটের স্থায়ী সমাধান হবে। সূত্র: সময় টিভি

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত