প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

আগামী বাজেটে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের উন্নয়ন কর্মসূচি হবে ৯৪১০ কোটি টাকার

জাফর আহমদ: আগামী ২০১৮-১৯ অর্থবছরের বাজেটে বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচিতে ৯ হাজার ৪১০ কোটি ৬৬ লাখ টাকা চায় স্বাস্থ্য ও পরিকল্পনা কল্যাণ মন্ত্রণালয়। এ টাকায় পুরাতন ২৮টি প্রকল্পের পাশাপাশি ২১টি নতুন প্রকল্প রাখতে চায় মন্ত্রণালয়। অর্থমন্ত্রণালয়ে পাঠানো এ সম্পর্কিত এক চাহিদাপত্রে এ কথা উল্লেখ করা হয়।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ে প্রস্তাবিত টাকা ৯ হাজার ৪১০ কোটি ৬৬ লাখ টাকার মধ্যে নতুন ২১টি প্রকল্পে ৩০০ কোটি টাকা চাওয়া হয়। এ টাকা রাজস্ব খাত থেকে আসবে। পুরাতন ২৮টি প্রকল্পের বিপরীতে রাজস্ব খাত থেকে আরও ৬ হাজার ২৩৩ কোটি টাকা। এর বাইরে বিদেশি ঋণ সহায়তা বাবদ রয়েছে ২ হাজার ৮৭৭ কোটি টাকা। এ টাকা সরকার কর্তৃক বরাদ্দ করার টাকার ৭৭১ কোটি টাকা বেশি।

অর্থমন্ত্রণালয় কর্তৃক প্রদত্ত সিলিং ধরা হয়েছে ৮ হাজার ৬৩৯ কোটি ৬৬ লাখ টাকা। এর টাকার মধ্যে রাজস্ব থেকে ধরা হয়েছে ৫ হাজার ৭৬২ কোটি ৬৬ লাখ টাকা এবং বিদেশি ঋণ সহায়তা রয়েছে ২ হাজার ৮৭৭ কোটি টাকা।

সরকার অনুমোদিত চতুর্থ সেক্টর কর্মসূচির এইচপিএনপি ভুক্ত অপারেশনাল প্লানের মাধ্যমে প্রাথমিক স্বাস্থ্য সেবা, মাতৃস্বাস্থ্য, ইপিআই. সংক্রামক ও অসংক্রামক রোগ নিরাময়, নিয়ন্ত্রণ, ডায়েট, এএমআর, ওষুধ এবং উন্নয়ন খাতে নিয়োজিত জনবলের বেতন ভাতা ইত্যাদি গুরুত্বপূর্ণ কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়ে থাকে। এ সব কার্যক্রম যথাযথভাবে বাস্তবায়ন ও অনুমোদিত প্রকল্প বাস্তবায়নের জন্য সিলিংয়ের আওতায় প্রয়োজনীয় বরাদ্দ নিশ্চিত করাসহ চলমান অগ্রাধিকার ভিত্তিক প্রকল্প পরিকল্পনা সমূহ নিশ্চিতভাবে করতে এ সব বরাদ্দ প্রয়োজন।

পঞ্চ বার্ষিক পরিকল্পনা এবং টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্য অর্জনের লক্ষ্য চতুর্থ সেক্টর কর্মসূচি কার্যক্রম ও অনুমোদিত সঠিকভাবে বাস্তবায়নের এ অর্থ প্রয়োজন বলে উল্লেখ করা হয় স্বাস্থ্য ও পরিকল্পনা কল্যাণ মন্ত্রণালয়।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত