প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ঐতিহাসিক সফরে আগামী সপ্তাহে চীন সফরে যাচ্ছেন মোদী

সাইদুর রহমান : ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী আগামী সপ্তাহে চীন সফরে যাচ্ছেন। প্রতিবেশী দুই দেশের মধ্যে দীপাক্ষিক সম্পর্ক উন্নয়ন এবং উত্তেজনা কমাতেই এ সফরের লক্ষ্য। চীনের শীর্ষ কূটনীতিক স্টেট কাউন্সিলর ওয়াঙ্গ ই-ও চীনা প্রেসিডেন্টের সঙ্গে মোদির আসন্ন সাক্ষাতের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

ভারতের আনন্দবাজার পত্রিকা জানিয়েছে, ডোকলামের সংঘাতকালীন মওসুমের সেই বাহুবলী পররাষ্ট্রনীতি থেকে সরে এসে এখন মেরামতের কূটনীতির পথে হাঁটতে চাইছেন মোদি। তার সেই বার্তা নিয়েই এসসিও (সাংহাই কর্পোরেশন অর্গানাইজেশন)-র সম্মেলনে পররাষ্ট্রমন্ত্রী পর্যায়ের বৈঠকে যোগ দিতে বেইজিং পৌঁছেছেন ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ। সঙ্গে অদৃশ্য আমন্ত্রণের সিলবন্ধ খাম।

সেই আমন্ত্রণ আপাতত চীনের রাষ্ট্রপ্রধানের জন্য নয়। দিল্লি চাইছে, জুন মাসে চিনের কিংদাও প্রদেশে এসসিও সম্মেলনে মোদির সফর যেমন রয়েছে, তা সেভাবেই থাকুক। কিন্তু তার আগেই এ মাসের শেষদিকে বেইজিং সফরে যেতে পারেন ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী।

সম্ভাব্য এই সফরে চীনের প্রেসিডেন্ট ও প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সরাসরি দ্বিপাক্ষিক বৈঠকে মিলিত হবেন মোদি। এসসিও-র বহুপাক্ষিক ভিড়ের মঞ্চে দ্বিপাক্ষিক সংলাপের গুরুত্ব কিছুটা লঘু হয়ে যেতে পারে বলেই মনে করছে দিল্লির পররাষ্ট্র দফতর। তাছাড়া এসসিও সম্মেলন এতোটাই আঁটোসাটো যে ভারত-চীনের পৃথক আলোচনার পরিসর তৈরির জন্য যথেষ্ট সময় পাওয়া কষ্টকর।

তবে এখনও স্পষ্ট নয়, শেষ পর্যন্ত এই আয়োজন করে ওঠা সম্ভব হবে কিনা। কিন্তু মে এবং জুনÑ পরপর দুই মাসে মোদির দুইবার চীন সফর যদি বাস্তবায়িত করা যায়, তবে তা নিঃসন্দেহে দক্ষিণ পূর্ব এশিয়ার কূটনীতিতে এক অভিনব নজির গড়বে বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা।

চীনের শীর্ষ কূটনীতিক স্টেট কাউন্সিলর ওয়াঙ্গ ই বলেন, আমাদের নেতাদের নির্দেশনা অনুযায়ী এ বছর চীন-ভারত সম্পর্কের উন্নতি হয়েছে। এতে একটি ইতিবাচক গতিবেগ পরিলক্ষিত হয়েছে।

উল্লেখ্য, ২০১৮ সালের গোড়ার দিকেই চীন নিয়ে কিছুটা নরম সুরে চলার সিদ্ধান্ত নেন মোদি। চালু করা হয়েছে নিয়মিত দূতিয়ালি। নতুন পররাষ্ট্রসচিব বিজয় গোখলে নিজেও বেইজিং সফর করেন। জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত ডোভালকেও চীনে পাঠানো হয়। আগামী সপ্তাহে দেশটিতে সফরে যাবেন ভারতের প্রতিরক্ষামন্ত্রী। সূত্র: রয়টার্স, আনন্দবাজার।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত