প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বাসের চাপে থেঁতলানো গৃহকর্মী রোজিনার ডান পা কেটে ফেলা হয়েছে

বিআরটিসির বাস চাপায় থেতলে যাওয়া গৃহকর্মী রোজিনার ডান পা হাঁটুর উপরিভাগ পর্যন্ত কেটে ফেলতে হয়েছে।

শুক্রবার রাত ৯টার দিকে বিআরটিসির দোতলা বাস রাজধানীর বনানী চেয়ারম্যান বাড়ি বাসস্ট্যান্ডে তাকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে পায়ের ওপর দিয়ে চলে যায়। এরপরই তাকে ভর্তি করা হয় ঢাকার পঙ্গু হাসপাতালে। শনিবার দুপুরে তাকে পাওয়া যায়, হাসপাতালের দ্বিতীয় তলার ওয়ার্ডে।

রোজিনা জিটিভির এডিটর ইন চিফ সৈয়দ ইশতিয়াক রেজার বাসার গৃহকর্মী। শনিবার দুপুরে পঙ্গু হাসপাতালে পাওয়া যায় জিটিভির স্টাফ রিপোর্টার আলী আহমদকে। বর্তমানে রোজিনা আশঙ্কামুক্ত উল্লেখ করে তিনি এ প্রতিবেদকের প্রশ্নে বলেন, কোনোভাবেই তার ডান পা রাখতে পারলেন না চিকিৎসকরা। শুক্রবার রাতেই জরুরিভিত্তিতে অপারেশন করে ডান পা কেটে ফেলা হয়।

রোজিনার বাড়ি ময়মনসিংহের ঘোষগাঁও গ্রামে। তার বাবার নাম রসুল মিয়া ও মা রাবেয়া বেগম। শনিবার ভোরে রসুল মিয়া পঙ্গু হাসপাতালে পৌঁছেন। তিনি বেশ ক্ষীণ সুরে এ প্রতিবেদককে বলেন, অভাবে পইরা ঢাকায় মেয়েটারে দিছিলাম কামে। এহন পাওডাই গেছে গা। আমার মাইয়ার কী হইব? ওর মায়েরে ফোন কইরা সব জানাইছি। খালি কান্দে অর মায়।

আট বছর আগে জীবনের প্রথম গৃহকর্মী হিসেবে রোজিনা কাজ শুরু করেন সৈয়দ ইশতিয়াক রেজার বাসায়। রসুল-রাবেয়া দম্পত্তির ৬ মেয়ে ও ২ ছেলের মধ্যে রোজিনা দ্বিতীয়।

রোজিনা মৃদুকণ্ঠে জানান, তিনি তার বান্ধবীর সঙ্গে দেখা করতে মহাখালীর আমতলীতে গিয়েছিলেন। ফেরার সময় চেয়ারম্যানবাড়ির কাছে দাঁড়িয়েছিলেন। এসময় একটি বাস দাঁড়ালে সেটিতে ওঠার জন্য এগিয়ে গেলে সে বাসই তাকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে পায়ের ওপর দিয়ে চলে যায়।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত