প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

সিরিয়ায় মার্কিন হামলার প্রতিবাদে বিশ্বজুড়ে বিক্ষোভ

লিহান লিমা: সিরিয়ায় মার্কিন জোটের বিমান হামলার প্রতিবাদে যুক্তরাষ্ট্রসহ ভারত, মেক্সিকো, চিলি, তুরস্ক, সাইপ্রাস, গ্রীস, ইরাক ও ব্রিটেনে বিক্ষোভ শুরু হয়েছে। বিক্ষোভকারীরা যুদ্ধ-বিরোধী স্লোগান দিয়ে ব্রিটেন-ফ্রান্স ও যুক্তরাজ্যের যৌথ বিমান হামলার নিন্দা জানায়।

যুক্তরাষ্ট্রের নিউ ইয়র্ক, ওয়াশিংটন, আটলান্টা, অকল্যান্ড, শিকাগো, লস অ্যাঞ্জেলস, সান-ফ্রান্সিসকো ও পোর্টল্যান্ডের মত শহরগুলোতে শত শত বিক্ষোভকারী জড়ো হয়। বিক্ষোভকারীরা হোয়াইট হাউসের সামনে ‘সিরিয়াতে কোন যুদ্ধ নয়’ ব্যানার, পোস্টার লিখে জড়ো হন। অনেক ব্যানারে লিখা ছিল ‘ইরাক, সিরিয়া, লিবিয়া, যুদ্ধের শেষ নেই’। এছাড়া শত শত বিক্ষোভকারী ম্যানহাটনের ট্রাম্প টাওয়ারের সামনে জড়ো হয়ে ডোনাল্ড ট্রাম্পের সিদ্ধান্তের নিন্দা জানান। যুদ্ধবিরোধী গ্রুপ ‘কোড পিংক ওমেন ফর পিস’ এর সংগঠক এলিনর লেভিনি বলেন, ‘আমাদের সিরিয়াতে সামরিক উপস্থিতির কোন অধিকার নেই ।’

মেক্সিকোতে প্রতিবাদকারীরা মার্কিন দূতাবাসের সামনে ব্যানার, পোস্টার ও পতাকা নিয়ে জড়ো হয়। তারা দেশ, জাতি, বর্ণ নির্বিশেষে সবার জন্য সমান অধিকার নিশ্চিতকরণের কথা বলেন।

চিলিতে বিক্ষোভকারীরা মার্কিন দূতাবাসের সামনো সিরিয়ার পতাকা নিয়ে বিক্ষোভ করে ও স্লোগান দেয়। তবে পুলিশ তাদের ঘিরে রাখে এবং কয়েকজন বিক্ষোভকারীকে আটক করা হয়।

লন্ডনে ‘স্টপ দ্য ওয়ার কোয়ালিশন-এসটিডব্লিউসি’ এর সদস্যরা ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী থেরেসা মে’র বাসভবনের সামনে জড়ো হয়ে প্রতিবাদ করেন। তারা ব্রিটেনকে অবিলম্বে মার্কিন জোট থেকে বেরিয়ে আসার দাবি জানান। এছাড়া বিক্ষোভাকারীদের মধ্যে ‘রাজনীতিবীদ, তারকা, শিক্ষাবিদরা ট্রাম্প মে, এবং ম্যাক্রোঁকে খোলা চিঠি পাঠান। চিঠিতে তারা বলেন, ‘ট্রাম্প, মে, ম্যাক্রোঁর প্রস্তাবিত এই সামরিক হস্তক্ষেপ কোন সমাধান ডেকে আনবে না।’

গ্রীসের এথেন্সে দেশটির কম্যুনিস্ট পার্টির নেতৃত্বে হাজারো মানুষ জড়ো হয়ে সিরিয় সরকারের ওপর হামলার প্রতিবাদ জানায়। গ্রীক পুলিশ জানায়, প্রায় ৬ থেকে ৭ হাজার মানুষ সান্টাগামা স্কয়ারের মার্কিন দূতবাসের সামনে ‘আমেরিকানরা জনগণের হত্যাকারী’ পোস্টার নিয়ে মার্চ করে, এই সময় তারা সা¤্রাজ্যবাদ বিরোধী স্লোগান দেয়।

ভারতে ‘সোশালিস্ট ইউনিটি সেন্টার অব ইন্ডিয়া-মার্কিস্ট’ এর সদস্যরা ডোনাল্ড ট্রাম্পের সিদ্ধান্তের নিন্দা জানিয়ে বিক্ষোভ করেন। কলকাতায় ট্রাম্প, মে এবং ম্যাক্রোঁর ছবি পোড়ানো হয়।

সাইপ্রাসে বামপন্থীরা ব্রিটেনের সামরিক ঘাঁটি ‘আরএএফ অ্যাক্রোটিরি’র সামনে জড়ো হয়ে বিক্ষোভ করেন। প্রায় সাড়ে তিনশ বিক্ষোভকারী ব্রিটেনের নিন্দা জানায় এবং তারা অন্য দেশে সামরিক ঘাঁটি বন্ধের দাবি করে।

প্রসঙ্গত , শনিবার সিরিয়াতে বাশার আল আসার সরকারের রাসায়নিক অস্ত্র ব্যবহারের অভিযোগ এনে ব্রিটেন, ফ্রান্স ও যুক্তরাষ্ট্র একযোগে দেশটির ওপর ১০৫ টি মিসাইল নিক্ষেপ করে। সিরিয়ার আর্মি জানায়, তারা ৭১টি মিসাইল ভূপাতিত করেছে। এদিকে জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদ রাশিয়ার আনা সিরিয়ায় হামলার নিন্দা প্রস্তাব বাতিল করে। বলিভিয়া এবং চীন এই প্রস্তাবের পক্ষে ভোট দিয়েছিল। সূত্র: টেলিসার

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ