প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

হাঁসের বাচ্চা ভ্যানের নিচে পড়ায় চালককে পিটিয়ে হত্যা

রাজশাহী: তুচ্ছ ঘটনায় বাঁশ দিয়ে পিটিয়ে সিদ্দিকুর রহমান মণ্ডল (৪৫) নামের এক ভ্যান চালককে হত্যা করেছেন আপন চাচাতো ভাইয়েরা। এই ঘটনায় সিদ্দিকুরের চাচা আরিম মণ্ডল (৫৮) ও চাচাতো ভাই মাহাবুবুর রহমানকে (৩৫) আটক করেছে পুলিশ।

সোমবার (১২ মার্চ) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে রাজশাহীর বিমানবন্দর থানার বাঘাটা এলাকায় এ হত্যাকাণ্ড ঘটে। তিনি ওই এলাকার মৃত করিম মণ্ডলের ছেলে। সিদ্দিকুরের মরদেহ উদ্ধার করে ময়না-তদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। রাজশাহীর বিমানবন্দর থানার পুলিশ পরিদর্শক রাজিবুল ইসলাম বিষয়টি নিষ্চিত করেছেন।

পুলিশ পরিদর্শক রাজিবুল ইসলাম জানান, জমিজমা নিয়ে চাচা ও চাচাতো ভাইদের সঙ্গে দীর্ঘ দিন থেকে বিরোধ চলছিল ভ্যানচালক সিদ্দিকুর রহমানদের। সোমবার সকালে তিনি ভ্যান নিয়ে যাওয়ার সময় মাহাবুবুরের একটি হাঁসের বাচ্চা তার চাকার নিচে পড়ে। এ নিয়ে চাচাতো ভাই আবদুর রাজ্জাকের স্ত্রী ইরানী ওরফে সালমা বেগম, তার স্বামী, দেবর মাহাবুবুর রহমান ও হাবিবুর রহমানকে ডেকে আনেন। সেখানে সিদ্দিকুরের সঙ্গে তাদের কথা কাটাকাটি শুরু হয়। এক পর্যায়ে বাঁশ দিয়ে চাচাতো ভাই সিদ্দিকুরকে পেটাতে শুরু করেন তিন ভাই।

এতে সিদ্দিকুর মাটিতে লুটিয়ে পড়েন এবং ঘটনাস্থলেই মারা যান। খবর পেয়ে ঘটনাস্থল গিয়ে সেখান থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। এ সময় আরিম মণ্ডল ও মাহাবুবুরকে আটক করা হয়। মাহাবুবুরের অন্য দুই ভাই আবদুর রাজ্জাক (৩৮) ও হাবিবুর রহমান (৩০) পালিয়ে যাওয়ায় তাদের আটক করতে পারেনি পুলিশ।

পুলিশ পরিদর্শক রাজিবুল ইসলাম আরো জানান, সিদ্দিকুরের মরদেহ উদ্ধার করে ময়না-তদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। হত্যাকাণ্ডে জড়িত অন্যদের আটকের চেষ্টা চলছে। সূত্র: বাংলা নিউজ

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত