প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

বিয়ের প্রতিবাদ করায় স্ত্রীকে হত্যা, স্বামী গ্রেফতার

সুজন কৈরী : রাজধানীর কদমতলীতে গৃহবধূ শিউলি আক্তার (২৭) হত্যাকা-ের ঘটনায় তার স্বামী রিপনকে (৩৮) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। দ্বিতীয় বিয়ের প্রতিবাদ করায় ক্ষুব্ধ হয়ে শিউলিকে হত্যা করা হয়েছে বলে জিজ্ঞাসাবাদে জানতে পেরেছে পুলিশ।

এর আগে রোববার দুপুরে রাজধানীর বাড্ডার আদর্শনগরের একটি বস্তিমেস থেকে রিপনকে গ্রেফতার করে কদমতলী থানা পুলিশ।

পুলিশের ওয়ারী বিভাগের ডিসি মোহাম্মদ ফরিদ উদ্দিন বলেন, রিপন তার স্ত্রীকে হত্যায় দায় স্বীকার করেছে। প্রথম স্ত্রী শিউলির অনুমতি ছাড়াই দ্বিতীয় বিয়ে করেছিল রিপন। শিউলি বিষয়টির প্রতিবাদ করায় ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে এ হত্যাকান্ড ঘটায় রিপন। সোমবার তাকে আদালতে হাজির করে ফৌজদারি কার্যবিধির ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী গ্রহন করা হবে।

গত ৭ মার্চ কদমতলীর শনির আখড়া স্মৃতিধারা সড়কের ১৯৫৮ নম্বর বাসা থেকে পুলিশ গৃহবধূ শিউলি আক্তারের লাশ উদ্ধার করে। ঘটনার পর থেকেই মাছ বিক্রেতা রিপন পলাতক ছিলেন।

কদমতলী থানার ওসি এম এ জলিল জানান, তিন বছর আগে শিউলির সঙ্গে বিচ্ছেদ ঘটে রিপনের। তিন-চার মাস আগে আবারো তারা একসঙ্গে থাকতে শুরু করেন। তবে মাঝে আরেকটি বিয়ে করেন রিপন। এ নিয়ে কিছুদিন ধরে তাদের মধ্যে দাম্পত্য কলহ চলছিল। বিষয়টি নিয়ে ৭ মার্চ দুইজনের মধ্যে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে ক্ষুব্ধ হয়ে রিপন শিউলিকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করে। পুলিশ জানায়, ১১ বছর আগে তাদের বিয়ে হয়। এই দম্পতির সজীব (৮) ও শুভ (৫) নামে দুই ছেলে রয়েছে। শিউলির বাসার পাশেই তার মা-বাবা থাকেন। ঘটনার সময় শিউলির দুই সন্তান তার নানার বাসায় ছিল। শিউলির বাবার নাম মনির হোসেন। তার গ্রামের বাড়ি চাঁদপুর সদরের রামচন্দ্রপুর এলাকায়।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত