প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

এটিএন নিউজের ‘কানেক্টিং বাংলাদেশ’ প্রোগ্রামে যুক্ত হলো বিটিভি ও বিটিভি ওয়ার্ল্ড

মোরশেদ মুকুল: পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের জনগোষ্ঠীভিত্তিক সচেতনতামূলক প্রচারণা কার্যক্রম ‘কানেক্টিং বাংলাদেশ’ প্রোগ্রামে এবার যুক্ত হলো বিটিভি ও বিটিভি ওয়ার্ল্ড। একই সাথে প্রোগ্রামটির অডিও রেকর্ড বাংলাদেশ বেতারেও সংযুক্ত করতে চেষ্টা চলছে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা।

বুধবার সন্ধ্যায় রাজধানীর একটি হোটেলে এটিএন নিউজ আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে বিষয়টি জানিয়েছেন চ্যানেলটির সিইও মুন্নি সাহা।

সংবাদ সম্মেলনে উপিস্থিত ছিলেন, পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক কাজী সারোয়ার মোস্তফা, পরিচালক ড. মোহাম্মদ শরীফ, এটিএন নিউজের সিইও সরকার ফিরোজ, প্রভাষ আমীন, জাকিয়া আক্তার প্রমুখ।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক কাজী সারোয়ার মোস্তফা জানান, দু’এক বছর পূর্বেও দেশের প্রায় প্রতিটি পরিবারে সদস্য সংখ্যা ছিল ৫ থেকে ৭ জনের মতো। এখন যা এসে দু’তিন জনের মধ্যে সীমাবদ্ধ থাকছে। সরকারের নানা কর্মসূচির ফলে যুদ্ধ পরবর্তী সময়ে বাংলাদেশের জনসংখ্যা অনেকাংশে নিয়ন্ত্রিত হলেও পার্শ¦বর্তী দেশ পাকিস্তান তা পারেনি। তাদের সেই সংখ্যা বর্তমানে ২০ কোটি ছাড়িয়েছে।

তিনি বলেন, চলমান কর্মসূচি ‘কানেক্টিং বাংলাদেশ’ এর মাধ্যমে দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চল, যেখানে পর্যাপ্ত চিকিৎসা সেবা পৌছায় না সেখানকার লোকদের সাথে আমরা সরাসরি যুক্ত হতে পেরেছি। যার মাধ্যমে যেসব প্রান্তিক জনগোষ্ঠি বিষেশজ্ঞ চিকিৎসকের সান্নিধ্য চিন্তাই করতো না আমরা তাদের ঢাকা থেকে সরাসরি গাইড লাইন করছি। তাদের সব ধরণের সমস্যা সরাসরি আমাদের সাথে ভাগাভাগি করছেন।

কাজী সারোয়ার বলেন, আমাদের দেশে শিশু মৃত্যুর হার কমে আসলেও মাতৃমৃত্যুর হার আশানুরুপ কমে আসেনি। আশা করছি এটিএন নিউজের ‘কানেক্টিং বাংলাদেশ’ এর সাথে বিটিভি ও বিটিভি ওয়ার্ল্ড যুক্ত হওয়ায় সেই সংখ্যা কমে আসবে। একই সাথে সরকার এবিষয়ে সফলতাও অর্জন করবে।

মাতৃস্বাস্থ্যের সচেতনতার বিষয়ে তিনি বলেন, বিশ্বের উন্নত দেশগুলোর মধ্যে ইসরাইলের লোক সংখ্যা অনেক কম হলেও তারাই পৃথিবী শাসন করছে। তার একমাত্র কারণ মেধা। শিশুর মাতৃগর্ভ থেকে যদি তার যতœ শুরু না হয় সেই শিশু মেধাবী হয়ে জন্ম নিবে কিভাবে। অযতœ আর অবহেলা নিয়ে যে শিশুর জন্ম হয় সেই শিশু অপুষ্টি আর মেধাহীন হয়েই জন্মলাভ করে।
তাই মেধাবী জাতীর জন্য শিশুর যতœ শুরু করতে হবে তার মায়ের গর্ভে থাকায় অবস্থা থেকেই।

তিনি বলেন, দেশে এখনো ৫০ শতাংশ মহিলা আছেন যারা জানে না শিশু জন্মের ৩০ মিনিটের মধ্যে মাতৃদুগ্ধ পান করাতে হয়। আবার সেই মায়েরা শিশুকে ৬০ মাসের মধ্যেই গুরুর দুধ খাওয়ানো শুরু করে।

কাজী সারোয়ার ফিরোজ আশা ব্যক্ত করে বলেন, আমরা আশা করি কানেক্টিং বাংলাদেশের সাথে যুক্ত হওয়ার ফলে পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের কাজ আরো বহুগুণ বৃদ্ধি পেয়ে চলমান থাকবে।

জানতে চাইলে পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক কাজী সারোয়ার মোস্তফা আমাদের অর্থনীতিকে বলেন, ‘কানেক্টিং বাংলাদেশ’ এর মাধ্যমে পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর এক নবতর প্রচারণার শরীক হয়েছে।

যার ফলে দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলে ছড়িয়ে তাকা সেবাবঞ্চিত মানুষের পরিবার পরিকল্পনা বিষয়ক জিজ্ঞাসা ও চিকিৎসা সেবা ঢাকার এটিএন নিউজ স্টুডিও থেকে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক ও পরামর্শকদের মাধ্যমে সরাসরি প্রদান করা হবে। প্রাথমিকভাবে তারা নরসিংদির রায়পুর, চাঁদপুর সহ কয়েকটি অঞ্চলে তাদের কার্যক্রম শুরু করেছেন বলেও জানিয়েছেন তিনি।

অনুষ্ঠানটি মোট ২৬টি পর্বে বিভক্ত থাকবে। পর্বগুলোতে পর্যায়ক্রমে বাংলাদেশের পূর্বচিহ্নিত বিভিন্ন পিছিয়ে থাকা অঞ্চল ও জনপদে অনুষ্ঠিত হবে জানিয়েছেন আয়োজকরা।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত