প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

‘সব মিলিয়ে দশ শতাংশ কোটা থাকতে পারে’

মারুফ হাসান নাসিম : আমি সাধারণত কোটা ব্যবস্থার পক্ষে নই। সব কিছু মেধার ভিত্তিতেই হওয়া উচিত। তবে মুক্তিযোদ্ধা সন্তান, অনগ্রসর জাতি এবং শারীরিক প্রতিবন্ধি সব মিলিয়ে দশ শতাংশ কোটা থাকতে পারে। এটা যদি হয় তাহলে আমি এর পক্ষে। তবে কোটা একদম তুলে দেওয়ার পক্ষে নই। কেননা তা হলে ইতিহাসকে অস্বীকার করা হবে। মানবতাকে অস্বীকার করা হবে। মানবিক মূল্যবোধকে অস্বীকার করা হবে। কোটা ব্যবস্থা

নিয়ে আলাপকালে বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ অধ্যাপক ড. এ কে আজাদ চৌধুরী আমাদের অর্থনীতিকে এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, মুক্তিযুদ্ধে যারা শহীদ হয়েছে তাদের সন্তান বা বংশধর তাদের জন্য একটা টোকেন কোটা থাকা উচিত। কারণ তারা মুক্তিযুদ্ধের সময় জীবন দিয়েছে, রক্ত দিয়েছে, শ্রম দিয়েছে। তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা সরূপ জাতি তাদের জন্য একটা টোকেন কোটা রাখতে পারে। আর অনগ্রসর জাতির জন্যও একটি টোকেন কোটা ব্যবস্থা থাকতে পারে। আর একটি হলো যারা শারীরিকভাবে অসচ্ছল বা প্রতিবন্ধি তাদের জন্য এক-দুই শতাংশ কোটা ব্যবস্থা থাকতে পারে। বিশ্বের সব জায়গাই এদের জন্য কোটা ব্যবস্থা রয়েছে। এই সব মিলিয়ে দশ শতাংশ কোটা ব্যবস্থা থাকতে পারে।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত