প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

মেহেদি চাষে লাভবান মুন্সীগঞ্জের কৃষকরা

হ্যাপী আক্তার : মেহেদি মূলত সাজের উপাদান বিয়ে থেকে শুরু করে সকল ধরনের উৎসবে মেহেদীর কথা সবার আগেই মনে পড়ে। তবে মেহেদী দিয়ে যে জীবিকা নির্বাহ করা যায় তা দেখিয়েছে মুন্সীগঞ্জের চাষিরা। বংশ পরম্পরায় মেহেদী চাষ করে স্বাবলম্বী হয়েছেন মুন্সীগঞ্জের ৫০-৬০টি পরিবার।

মুন্সীগঞ্জ জেলার সিরাজদিখান উপজেলার বালুরচর ইউনিয়নের খাসকান্দিরচর ও চাঁন্দেরচর এলাকার বির্স্তীণ দিগন্ত মাঠ জুড়ে চাষ হয়েছে মেহেদি। মেহেদি চাষে তাদের তেমন খরচ নেই। একবার চাষ করে সেই মেহেদি গাছের ডগা রোপন করে আবার মেহেদি উৎপাদন করা যায় ।

ঈদ, বিয়ে কিংবা অন্য যেকোনো উৎসব অনুষ্ঠানে মেহেদির ব্যবহার হয়ে থাকে বেশি। সৌন্দর্য চর্চায় এর কদর দিন দিনই বেড়েই চলছে। আবার মেহেদির রয়েছে নানান ওষধি গুণও। তাই মুন্সীগঞ্জের চাষিরা বেশ আগ্রহ নিয়েই মেহেদির আবাদ করছেন।

একটি গাছের তিনটি ডাল নিয়ে একটি আটি করা হয়। এই রকম ১শ’টি আটি তারা ৪শ’ থেকে ৫শ’ টাকায় বিক্রি করে। বছরে তারা একটি গাছ থেকে ৪বার মেহেদির ডাল বিক্রি করতে পারেন। আবার গাছের সেই ডাল রোপণ করে পুনরায় মেহেদির চাষ করছেন।

মুন্সীগঞ্জের মেহেদি বিক্রি হচ্ছে ঢাকার কাওরান বাজার ও যাত্রাবাড়ীতে। শীত মৌসুমে মেহেদির পাতা ছোট হওয়া ও এর চাহিদা কিছুটা কম থাকে এবং গ্রীষ্ম মৌসুমে ফলন ভালো হয় ও চাহিদাও বেশি থাকে বলে জানালেন চাষিরা।

মুন্সীগঞ্জের কৃষি কর্মকর্তা জানান, মেহেদি চাষ এখন বেশ লাভজনক। মেহেদি চাষ করে কৃষকেরা স্বাবলম্বী হয়েছে।

সূত্র : ডিবিসি নিউজ।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত