প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

পগবাকে ইউনাইটেডের ‘বস’ চেনালেন মরিনহো

স্পোর্টস ডেস্ক: এই তো কদিন আগ পর্যন্তও পল পগবার প্রশংসায় পঞ্চমুখ ছিলেন হোসে মরিনহো।

কিন্তু হঠাৎই তাদের সেই সুসম্পর্কের সুতোটা ছিড়ে গেছে। ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের কোচ মরিনহো ও মিডফিল্ডার পগবার মধ্যকার সম্পর্কটা এখন রূপ নিয়েছে তিক্ততায়।

গত কদিনের ক্রমাগত টানাপোড়েনে সেই তিক্ততা এতোটাই গাঢ় যে, তার জের ধরে দুজনে জড়িয়ে পড়েন উচ্চ বাগ-বিতন্ডায়। সেই উত্তপ্ত বাক্য বিনিময়ের এক পর্যায়ে পগবাকে ইউনাইটেডের ‘বস’ চিনিয়ে দিয়েছেন কোচ মরিনহো! মৌখিক যুদ্ধের এক পর্যায়ে পগবাকে মরিনহো স্পষ্ট জানিয়ে দেন, ‘আমিই ইউনাইটেডের বস।’ সুতরাং মুখ সাবধান!

ব্যাপারটা এমন নয় যে, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের কোচ কে, সেটা পগবা জানেন না। পগবা বরং ভালো করেই জানেন মরিনহোই কোচ, মরিনহোই ইউনাইটেডের সর্বেসর্বা। তারপরও পগবাকে নতুন করে সেটা জানিয়ে দেওয়ার কারণ, মরিনহো এই মাধ্যমে বুঝিয়ে দিয়েছেন, হেডমাস্টারের সঙ্গে একজন ছাত্রের চোখ গরম করে কথা বলাটা চরম বেয়াদবি। তিনি কিছুতেই এমন বেয়াদবি বরদাস্থ করবেন না।

পগবার, প্রতিভা-সামর্থ-দক্ষতায় পুরো ফুটবল বিশ্বই মোহিত। মরিনহো আরও বেশি। সেই মুগ্ধতা থেকেই ২০১৬ সালে ফরাসি এই মিডফিল্ডারকে জুভেন্টাস থেকে তৎকালীন রেকর্ড ১০৫ মিলিয়ন ইউরোয় ইউনাইটেডে নিয়ে আসেন মরিনহো।

শুধু চড়া দামেই নয়, উচ্চ বেতন দেওয়ার মাধ্যমে পগবাকে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের সর্বোচ্চ পারিশ্রমিক পাওয়া ফুটবলারও বানান মরিনহো। জানুয়ারি আর্সেনাল ছেড়ে অ্যালেক্সিস সানচেজ ইউনাইটেডে যোগ দেওয়ার আগ পর্যন্ত পগবাই ছিলেন ইংলিশ লিগের সর্বোচ্চ পারিশ্রমিক পাওয়া ফুটবলার।

একজন মিডফিল্ডারকে এতো চড়া দামে কেনা এবং উচ্চ বেতন দেওয়ায় কোচ মরিনহোকে অনেক সমালোচনা সইতে হয়েছে। নিন্দুকেরা এমনও বলেছেন, মরিনহো পগবাকে উচিতের চেয়ে বেশিই মূল্যায়ন করছেন! কিন্তু বাইরের সেসব সমালোচনাই ঢাল হয়ে ফিরিয়েছেন মরিনহো। উল্টো উচ্ছ্বসিত প্রশংসায় পগবাকে তুলে ধরেছেন উচুতে। সেই পগবাই এখন মরিনহোর চোখের কাটা হয়ে উঠার কারণ, পগবার সাম্প্রতিক পড়তি ফর্ম।
চোটের কারণে বারবারই মাঠের বাইরে ছিটকে পড়া পগবা সম্প্রতি নিজের সেরা রূপটা হারিয়ে ফেলেছেন। কোচ মরিনহো তার উপর আর সেভাবে আস্থা রাখতে পারছেন না। ফল, ইউনাইটেডের গত ৫ ম্যাচের একটিতেও পগবাকে পুরো ৯০ মিনিট খেলাননি মরিনহো। কখনো বদলি তালিকায় বেঞ্চে বসিয়ে রেখেছেন। কখনো বা মাঠ থেকে তুলে নিয়েছেন। আর কোচের এই সিদ্ধান্তগুলোই পগবার মনের কোণে জ্বেলে দিয়েছে ক্ষোভের আগুণ।

ইংলিশ পত্রিকা ‘দ্য সান’-এর খবর, সম্প্রতি মরিনহোর ক্যারিংটনের অফিসে দুজনের মধ্যে বেঁধে যায়। মরিনহোর মতো পগবাও নাকি চোখ গরম করে উচ্চ শব্দে কথা বলেন। দলের কোচ হয়ে একজন ফুটবলারের এমন আচরণ মেনে নেবেন মরিনহো! তিনি মেনে নিতে পারেন।

পারেননি বলেই মুখের সামনে পগবাকে নতুন করে ইউনাইটেডের বস চেনান মরিনহো। স্পষ্ট করে বলেন, ‘তাকিয়ে দেখ, দরজার সামনে আমার নাম খেলা আছে। যেটা বলে দিচ্ছে আমিই ইউনাইটেডের কোচ। আমিই বস।’
আগে যাই করুন, কোচ মরিনহো এই কথা বলার পর নাকি আর একটা কথাও বলেননি পগবা। পরিবর্তন

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত