প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

রেগে গিয়ে সাপের মাথা চিবুলেন তিনি

ডেস্ক রিপোর্ট : রাগ হলে অনেকেই হিতাহিত জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন। এসময় ক্রুদ্ধ ব্যক্তি খুন পর্যন্ত করে বসেন। তবে, সাপের মাথা কেউ চিবিয়ে খেয়েছে তা শোনা যায়নি। এমনই কাণ্ড ঘটিয়ে এখন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ভারতের উত্তরপ্রদেশের হারদুইয়ের বাসিন্দা সোনেলাল।

শনিবার শুকলাপুর ভাগার গ্রাম থেকে মোহনগঞ্জ কমিউনিটি স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ফোন আসে যে, এক কৃষক অজ্ঞান হয়ে পড়ে আছেন। হাসপাতালে নিয়ে আসতে তাকে অ্যাম্বুলেন্স প্রয়োজন। ওই দিন সন্ধ্যা ৭টায় সোনেলালকে স্বাস্থ্যকেন্দ্রে নিয়ে আসা হয়। চিকিৎসক ডা. মহেন্দ্র ভার্মা ও কম্পউণ্ডার হিতেশ কুমার সোনেলালের চিকিৎসা সেবার দেখভাল করেন।

তারা বলেন, সোনেলালের প্রতিবেশী রামসেবক ও রামস্বরূপ আমাদেরকে জানিয়েছেন তাকে সাপে কামড় দিয়েছে। আমরা কামড়ে চিহ্ন খোঁজার চেষ্টা করেছি। কিন্তু সোনেলালের দেহে সাপের কামড়ের কোনো চিহ্ন পাওয়া যায়নি।

রাত ১০টা নাগাদ হুঁশ ফেরে সোনেলালের। এর পরে তিনি জানান, ওই দিন গোয়াল ঘরে তিনি গরু-বাছুর দেখভাল করছিলেন। ওই সময়ে তাকে একটি সাপ কামড় দেয়। আর এতে প্রচণ্ড রাগ হলে তিনি সাপটিকে ধরে তার মাথায় কামড়ে দেন। শুধু তা-ই নয়। এর পর সাপের মাথা ছিঁড়ে তা চিবিয়ে ফেলেন। মুখ থেকে তা ফেলে দেওয়ার পরই বেহুঁশ হয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়েন তিনি।

চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, সাপটি হয়তো সোনেলালকে ভালোভাবে কামড় দিতে পারেনি। তবে সাপটি বিষাক্ত হতে পারে। তাই মাথার অংশ চিবিয়ে খাওয়ার ফলেই বেহুঁশ হয়ে পড়েছিলেন সোনেলাল।

স্থানীয়রা অবশ্য জানিয়েছেন সোনেলাল নেশাগ্রস্ত মানুষ। রাইজিংবিডি

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ