প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

টেকনাফে পাহাড় কাটতে গিয়ে যুবকের মৃত্যু

ফরহাদ আমিন, টেকনাফ: হ্নীলায় বনবিভাগের লোকজনের রহস্যজনক আচরণে পাহাড়-টিলা কাটা অব্যাহত রয়েছে। এবার পাহাড় কাটতে গিয়েই মাটি চাপা পড়ে এক শ্রমিকের মৃত্যু ঘটেছে।

সূত্রে জানা যায়, রোববার সকাল সাড়ে ৬টার দিকে উপজেলার হ্নীলা ইউনিয়নের মরিচ্যাঘোনায় পইরার বাপের পাহাড় থেকে মাটি কেটে ট্রলিতে ভতির সময় মাটি চাপা পড়ে স্থানীয় মৃত মোহাম্মদ হোছনের পুত্র মোঃ দেলোয়ার হোছন (২২) রক্তাক্ত ও মুমূর্ষ হয়ে পড়ে।  তাকে দ্রুত উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য হ্নীলা হয়ে কুতুপালং রোহিঙ্গা ক্যাম্প হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

এ ঘটনার খবর পেয়ে টেকনাফ মডেল থানার এসআই জাহিদ সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। পারিবারিকভাবে সমঝোতা হওয়ায় মাটি চাপায় নিহত ব্যক্তিকে দাফনের প্রস্তুতি নেওয়া হয়।

স্থানীয় মেম্বার বশির আহমেদ মাটি কাটতে গিয়ে মাটি চাপা পড়ে শ্রমিক নিহতের বিষয়টি স্বীকার করেন।

এছাড়া এস আই জাহিদ হোসেন জানান, পাহাড় কাটার সময় মাটি চাপা পড়ে শ্রমিক নিহতের বিষয়টি জানতে পেরে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করি। পারিবারিকভাবে কোনো অভিযোগ না থাকায় লাশ দাফনের প্রস্তুতি নিচ্ছে।

এদিকে স্থানীয় লোকজন জানান, প্রভাবশালী কতিপয় ব্যক্তি দালালের মাধ্যমে বনবিভাগের লোকজন দৈনিক, সাপ্তাহিক ও পাক্ষিক চুক্তিতে ম্যানেজ করে সরকারী-বেসরকারী পাহাড়-টিলা কেটে সাবাড় করছে। এসবের বিরুদ্ধে কেউ কথা বললে তাদের বা আত্নীয়-স্বজনের বিরুদ্ধে উল্টো বন মামলা হওয়ায় হয়রানিতে পড়ার ভয়ে কেউ মুখ খুলে না।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বাধিক পঠিত