প্রচ্ছদ

সর্বশেষ খবর :

ভোলায় নির্মিত হচ্ছে ৯৬টি সাইক্লোন সেল্টার

এম. শরীফ হোসাইন, ভোলা: ভোলার ৭ উপজেলায় প্রায় ৫’শ কোটি টাকা ব্যয়ে ৯৬ টি সাইক্লোন সেল্টার নির্মিত হচ্ছে। ‘বহুমুখী দূর্যোগ আশ্রয়ণ প্রকল্প’র মাধ্যমে স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর (এলজিইডি) এর অধীনে এসব স্কুল কাম সাইক্লেন সেল্টার নির্মাণে অর্থায়ন করছে বিশ্ব ব্যাংক।

আগামী ২ মাসের মধ্যে এসব কাজের টেন্ডার প্রক্রিয়া সম্পন্ন করার কথা রয়েছে। আশ্রয়ণ কেন্দ্রগুলোর নিচতলা ফাঁকা রেখে তৃতীয় তলা পর্যন্ত করা হবে। দূর্যোগকালীন সময়ে প্রতিটি কেন্দ্রে ২ হাজার মানুষের ধারণ ক্ষমতা নির্ধারণ করা হয়েছে। এতে করে প্রাকৃতিক দুর্যোগে প্রায় ২ লাখ মানুষের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা হবে। জেলা এলজিইডি সূত্র থেকে এ তথ্য জানা গেছে।

এলজিইডি নির্বাহী প্রকৌশলী শাখাওয়াত হোসেন বলেন, ভোলা উপকূলীয় জেলা হওয়াতে এখানে সাইক্লোন সেল্টার অতি গুরুত্ব বহন করে। দূর্যোগের সময় এসব আশ্রয় কেন্দ্রই হয়ে উঠে সাধারণ মানুষের একমাত্র ভরসাস্থল। প্রতিটি কেন্দ্র বিদ্যালয় কাম সাইক্লোন সেল্টার হিসেবে ব্যবহার করা হবে। ৯৬টি সাইক্লোন সেল্টার নির্মাণ সকল পক্রিয়া সম্পন্ন করে চূড়ান্তভাবে টেন্ডারের অপেক্ষায় রয়েছে।

তিনি আরো বলেন, প্রতিটি সাইক্লোন সেল্টারের নির্মাণ ব্যয় ধরা হয়েছে প্রায় ৫ কোটি টাকা করে। এছাড়াও জেলায় একই প্রকল্পের মাধ্যমে ২শ’ ২৪ কোটি টাকা ব্যয়ে আরো ৪২টি সাইক্লোন সেল্টার নির্মাণ কাজ এগিয়ে চলছে। এসব সাইক্লোন সেল্টার নির্মাণ সম্পন্ন হলে স্থানীয় বাসিন্দাদের দুর্যোগের আতংক অনেটাই কমে আসবে বলে মনে করেন এলজিইডি’র প্রধান এই কর্মকর্তা।

জেলা ঘূর্ণিঝড় প্রস্তুতি কর্মসূচি’র উপ-পরিচালক মো: শাহাবুদ্দিন মিয়া জানান, নতুন করে ৯৬টি সাইক্লোন সেল্টার নির্মাণ উপকূলবাসীর জন্য একটি ভালো খবর। জেলায় বর্তমানে ছোট-বড় মিলিয়ে চার শতাধিক সাইক্লোন সেল্টার রয়েছে। দূর্যোগ মুহুর্তে এসব কেন্দ্রে চার লাখেরও বেশি মানুষ অবস্থান করতে পারে। এসব সেল্টারের অবস্থাও বেশ ভালো। সরকারের নতুন করে ৯৬টি সাইক্লোন সেল্টার নির্মাণ দিপাঞ্চলে দুর্যোগের ঝুঁকি মোকাবেলায় অনেক কাজ দেবে। তবে আমাদের চরাঞ্চলগুলোতে আরো সাইক্লোন সেল্টার নির্মাণ প্রয়োজন বলে তিনি জানান।

এক্সক্লুসিভ রিলেটেড নিউজ

সর্বশেষ

সর্বাধিক পঠিত